পাতা:বিশ্বকোষ চতুর্দশ খণ্ড.djvu/৯৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মধ্যানয়ন তোম। বিন প্রভু নাই, যাইবার নাহি ঠাই, কামদেব চাদ যেন তেন মন হ'রেছে। অপরাধ ক্ষমা কয়, নুতন চন্দন পর, এই লও নবমলা বসিীমাল পন্নেছ।” মধ্যা অধারা— “গোহাগ করিয়া নিষ্ঠ্য, বলহ মামার ভৃত্য আজি দেখি একীকৃত্য দর্পণেতে চাও হে। অধরে কজ্জল দাগ, নয়নে তামূলরাগ, অলক্তাক্ত ভালভাগ কার কাছে পা ও হে ॥ মোরে প্রাণ ব’লে ডাক, অন্তের নিকটে থাক, বুঝিলাম মনোরাগ মনকলা খাও হে। তোম। দেখে হয় ভাতি, কঠিন তোমার রীতি, বুঝিমু তোমার প্রতি ষাও যাও যা ও হে।” মধ্য ধীরাধারা— “তুমি মোর প্রাণপতি, কখন করিল রতি, বুকি মুখে ভুলেছিস্থ তেই নাই মনে হে। বুকে দেখি নখচিহ্ন, অধর দশনে ভিন্ন, ভালে আলতার দাগ রক্রিম নয়নে হে ॥ শ্রম-বাকু মুখ ধো s, ক্ষণেক শয্যায় শোও, ছুয়্য। শুদ্ধ কর মালা তাৰুল চনানে হে। কত জান ভারি ভুরি, দেখিতে দেখিতে চুরি, পরিহার নমস্কার তোম হেন জনে হে ॥” ( ভারতচন্দ্ৰ—রসমঞ্জরী ) মাজুলি (স্ত্রী) মধ্যম অস্থলি । তৰ্দ্ধনী ও অনামিকার মধ্যস্থিত অঙ্গুলি । মধ্যানয়ন (রী ) গ্রহদিগের ফুট-গণনার প্রণালীবিশেষ। রবি প্রভৃতি গ্রহের ফুট গণনা করিতে হইলে শীঘ্র, মধ্য, কেন্দ্র প্রভৃতি স্থির করা আবশুক, নচেৎ গ্রহদিগের ফুটরাখ্যাদির জ্ঞান হয় না। স্বৰ্য্য মেষে আছে, মেষরাশি ৩• ডিগ্রী অথাৎ ত্রিশ অংশ। এই ত্রিশ অংশের মধ্যে রবি কোথায় আছে, কত অংশ, কত কল এৰং কত বিকলায় আছে, তাহার নিদ্ধারণের নামই ফুট। এই ফুট স্থির করিতে হইলে মধ্যানয়ন করিতে হয় । রৰি প্রভৃতি সকল গ্রহেরই মধ্যানয়ন কর। অবশ্যক। কেবল কেতুর মধ্যানয়নের নিয়ম দেখিতে পাওয়া যায় না, কারণ রাহুগ্রহ যে রাশির যত অংশে অবস্থিত আছেন, তাহার সপ্তম রাশির তত অংশে কেতুগ্রহ থাকিবে ; সুতরাং রাহুর মধ্যানয়ন করিলে কেতুর আর মধ্যানয়নের cश्वरव्रtछम इग्न नt । জ্যোতিষশাস্ত্রে মধ্যানয়নের নিয়ম লিখিত আছে । অধুনী XIV [ ৯৭ ] সিদ্ধান্তরহচুের মতেই প্রায় ফুটগণনা হইয় থাকে। স্বৰ্য্য R砂 ● अश्वriमथ्रनि সিদ্ধাস্ত প্রভৃতি গ্রন্থের মতেও ফুট গণনা করিতে পারা যায় । রবি, বুধ ও শুক্রের মধ্যানয়নের নিয়ম— * প্রথমে অন্সপিও ও দিনবৃন্দ স্থির করা আবগুক, অন্ধপিও ও দিনবৃন্দ নিম্নোক্তরূপে স্থির করিতে হয়। প্রথমে কত শকাব চলিতেছে, তাহ স্থির করিয়া ঐ শকাব্দের অঙ্ক হইতে ১৫১৩ অঙ্ক বিয়োগ করিলে অম্বাপি গু হইবে। এই অধাপিও দুই স্থলে রাখিয়া একটকে ৩৬৪ ও অপরটকে ৭ দিয়া গুণ করিবে । এই দুই অঙ্ক ও পৃথক্ স্থানে রাখা আবশুক । ঐ সপ্তগুণিত অব্দপিণ্ডকে পুনরায় আর এক স্থানে রাখিয়৷ ১৩৫০ দিয়া ভাগ করিতে হইবে। ভাগফল অন্তস্থানস্থিত অন্সপিণ্ডে যোঃ . করিয়া, অন্যত্র অব্দপিণ্ডকে ১০ • ০ দিয়া গুণ করিবে । অত:পর উহাতে ১৩৩২ যোগ করা আবশ্যক। তদনন্তর ঐ সপ্তপূরিত অঙ্গপিণ্ডে ঐ অঙ্ক যোগ করিয়া ৮• • দিয়া ভাগ করিতে হইবে। ভাগফল বাহ থাকিবে, তাছাকে ৩৬৪ দিয়া গুণ করিৰে, গুণফল অঙ্ক অস্বপিণ্ডে যোগ করিলে দিনবৃন্দ হয়। “ৰিশ্বেযুচন্দ্রোন (১৫১৩) শকাথাপিওঃ কৃতাঙ্গরামৈ-(৩৬৪ ) গুণিতে নগ-( ৭ ) স্নাং । অস্থাৎ খবাণাগ্নিধরাংশ-(১৩৫০) যুক্তাৎ সহস্ৰ-( ১ • • • ) নিম্নাদযমাগ্লিবিশ্বৈ: ( ১৩৩২ )। যুক্তাৎ খখাষ্টে-(৮•• ) স্থতযুৰ ক্রিয়াদি গতাহযুক্তঃ শশিতে দিনৌঘঃ।” (সিদ্ধান্তরহস্ত ) এইরূপে অস্কাপিও ও দিনবৃন্দ স্থির করিয়া তাহার পর মধ্য স্থির করিতে হইবে । দিনবৃন্দ দুই স্থলে রাথিয় একটকে ৭• দিয়া ভাগ করিতে হইবে, ভাগফল যাহা লব্ধ হইবে, তাছা অপর ঐ লব্ধাঙ্ক অপর দিনবৃন্দে হীল করিবে । পুনরায় দিনবৃন্দকে ৯• • • দিয়া হরণ করিলে যে ভাগফল থাকিবে, তাহাই অংশাদি । তৎপরে অবপিণ্ডকে ৮ দিয়া গুণ, পরে ৭০২ দিয়া ভাগ দিলে কলাদি নিরূপিত হয় । এই কলাদি পুৰ্ব্বস্থাপিত অংশাদিতে হীন করিবে । তাহার পর উহাতে দেশাস্তুর-কলা হীন করিলে শুদ্ধদিনাদি হইবে । ঐ দিনকে ৩০ দিয়া ভাগ করিয়া, উহার ভাগশেষ অঙ্ক দ্বারা অংশাদি সংস্থাপন করিবে । তৎপরে ঐ লব্ধাঙ্ককে ১২ দিয়৷ হরণ করিয়া লন্ধাঙ্ক পরিত্যাগ করিবে । ইহার শেষ অঙ্ক দ্বার রাশি নির্ণয় হয়। তদনন্তর রাশি প্রভৃতিতে রবির ক্ষেপাঙ্ক যোগ করিলে রৰি, বুধ ও শুক্রের মধ্যরাপ্তাদি স্থির হইবে। রবি, বুধ ও শুক্র এই তিন গ্রহের পুরোক্তরূপে মধ্য স্থিৰ করিতে হয় ।