পাতা:বিশ্বকোষ দশম খণ্ড.djvu/২৪৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


"भैोडि ৰোগসিদ্ধ পরমর্বিদিগকেও লহল ইঞ্জিয়বেগে বিচলিত হইতে দেখিতে পাওয়া যায়, ধৈর্য্যন্ধপ আলানে জ্ঞানরূপ শৃঙ্খলে বন্ধন না করিলে, ইঞ্জিয়ন্ধপ মত্তহস্তীর ৰত্নীকরণ করা কখনই সাধারম্ভ হয় না। ইঞ্জিয়বেগে বুদ্ধি বিচলিত, মনতুর্ণিত, श्रुङ्गम् 5क्षश, स्रiश्च बलगनि, 'ेष्ठङछ दिग्छ्।ि ५ब१ खनि विश्रम হয়। অতএব সৰ্ব্বথা যত্নপর হইয়া, ইক্রিয়হস্তীকে বশ করিবে । ইঞ্জিয়ন্ধপ চুর্দান্ত হস্তী বশীভূত হইলে সংসার এমন কি স্বয়ং ঈশ্বরও বশীভূত এবং পরাজিত হন। ঈশ্বর বশ হইলে নিৰ্ব্বাণরূপ পরম পদ প্রাপ্ত হওয়া যায়, তাহাতে অণুমাত্র সন্দেহ নাই । কাম, ক্রোধ, লোভ, হৰ্ষ, মান ও মদ ইহাদের নাম অরি ষড়বর্গ। এই যড় বর্গ পরিহার না করিলে কোন মতেই সুখলান্ডেয় সস্তাৰনা নাই । শাস্ত্রে কাম বিষাগ্নিস্বরূপ বর্ণিত হইয়াছে, কেননা ইহার জালা, বিষ ও অগ্নি অপেক্ষাও ভয়ানক । নিতান্ত প্রশাস্তচিত্ত ও কামানলে পতিত হইলে, একান্ত অস্থির হইয়া খাকে । সংসারে কামপ্রভাবে যেরূপ লোকের আশু পতন হয়, এরূপ আর কিছুতেই নহে। অতএব সৰ্ব্বথা জ্ঞানরূপ সুশীতল সলিলে কামানল নিৰ্ব্বাণ রাখা একাত্ত কৰ্ত্তব্য । যতপ্রকার শত্রু আছে, ক্রোধ সৰ্ব্বাপেক্ষা প্রধান শত্রু। এইজন্ত ক্রোধকে মহারিপু কহে । শরীয়ে ক্রোধ থাকিলে অল্প শত্রুর প্রয়োজন হয় না। ক্রোধ সমস্ত পৃথিবীকে বিপক্ষ করে এবং বন্ধুকেও ধিকৃত করিয়া থাকে। ক্রোধ ও বিষধর অজগর উভয়ই এক পদার্থ। লোকে সর্প দেখিলে যেমন ভীত কয়, ক্রোধশীল ব্যক্তি হইতেই তেমনি ভৗত ও উদ্বেলিত হইয় থাকে। ক্রুদ্ধ ব্যক্তির কার্য্যাকার্য বিচায় নাই, বাচ্যাবাচ্য জ্ঞান নাই। অনেকে ক্রোধবশে আত্মঘাতী হয় । ক্ৰোধ সাক্ষাৎ কৃতাস্তস্বরূপ । রুদ্রের অংশে তমোগুণ হইতে প্রজাসংহার বা স্থষ্টিবিনাশজন্তই ক্রোধের জন্ম হইয়াছে, এইজন্য ক্রোধকে ত্যাগ করিলেই মুখ, না করিতে পারিলে, চিরকালই অমুখ ও অস্বস্তিভোগ করিতে হয়। ক্রোধপরতন্ত্র ব্যক্তি কোনকালেই শান্তিলাভ করিতে পারে না, শাস্তি ना श्हे८ण औयन बूथा ७ विक्लश्नांमांज । छांनिग्न खनिम्नां ক্রোধকে আশ্রয় দেওয়া কথনই উচিত নহে। এইজন্য সকলের ক্রোধ পরিহার করা বিধেয় । বিশেষতঃ যাহার রাজপদে প্রতিষ্ঠিত, তাহাদের ক্রোধপরিহার পরমধৰ্ম্ম । ক্ৰোধপর নল্পপতি, নরপতি নামের অযোগ্য । 翰 লোভের অাকায় প্রকার ও স্বভাবাদি অতীব ভীষণ । সমস্ত সংসার পাইলেও উহার পরিতৃপ্তি হয় না। লোভ অপেক্ষ মহাপাপ আর নাই। লোভে বুদ্ধি বিচলিত ও বিষয়লিঙ্গ [ २8१ ] नैौडि প্রাচুভূত হয়। বিষয়পিপাসার অভিভূত ব্যক্তির কোন লোকেই স্থখ নাই। লোতী বুদ্ধ বস্তুর জন্বেষণে সতত ধৰিত হয়, किरु श५ उांशएक उांश कब्रिध्ना पूज़ अवशांम करन। ¢हेछछ লোতীর স্বথ আকাশকুসুমবৎ ও স্বল্পকল্পনাবৎ একান্ত অলীক । অতএব প্রত্যেকের লোভ সৰ্ব্বতোভাবে পরিত্যজ্য । মোহের নাম পূর্ণ ৰিকার। অষ্টাগু বিকারের প্রতিকারের লম্ভাবনা অাছে, কিন্তু মোহুবিকারের ঔষধ নাই বা বৈদ্য নাই । একমাত্র সদগুরু ও সৎশিক্ষা ইহার প্রকৃত ঔষধ। মোহ হইতে মৃত্যুর স্বষ্টি হইয়াছে, অতএব মোছৰুে দূরে পরিহার করা একাস্ত কর্তব্য । আীক্ষিকী, ত্রয়ী, বার্তা ও দগুনীতি এই কয় বিষয়ে যাহারা বিশেষ অভিজ্ঞ ও ক্রিয়াবানু, নরপতি এই সকল লোকের সহিত বিনয়ম্বিত হইয়া যথাযথ রাজকাৰ্য্য পর্যালোচনা করিবেন। অাম্বীক্ষিকীতে অর্থবিজ্ঞান, ত্রীতে ধৰ্ম্মাধৰ্ম্ম, বার্তাতে অর্থানর্থ এবং দগুনীতিতে স্থায়াল্পায় প্রতিষ্ঠিত আছে। অহিংসা, মুমূতবাক্য, সত্য, শৌচ, দয়া ও ক্ষমা সৰ্ব্বদা ইহাদের অনুষ্ঠান করিতে হইবে । সতত প্রিয়বাক্যকথন, পরের দুঃখ দূরীকরণে অভিলাষ, দরিদ্রদিগকে ভরণাদি, দুৰ্ব্বল ও শরণাগতের রক্ষা, এই সকল কার্য সৰ্ব্বাপেক্ষ উপকারী। যে দেহ অধিব্যাধির মন্দির, যাহা অদ্য কিংবা কল্য অবগুই বিনষ্ট হইবে, যে দেহ মাংস, মূত্র ও পূরযাদি অসার ৰস্তুর সমষ্টি, এই শরীর রক্ষার জষ্ঠ কোনরূপ নীতি অবলম্বন করা সৰ্ব্বতোভাবে নিষিদ্ধ । আপনার সুথেচ্ছায় কখনও কাহাকে পীড়ন করা সঙ্গত নহে। লোকে যেমন পুজনীয় সজ্জনকে অঞ্জলি প্রদর্শন করে, কল্যাণকামনায় দুৰ্জ্জনের নিকট তেমনি বা তাহ অপেক্ষাও মুন্দর বিধানে অঞ্জলি বিধান করিবে । কি সাধু, কি অসাধু, কি শক্র, কি মিত্র অথবা দুৰ্জন বা সুজন সকলকে সৰ্ব্বদা প্রিয়বাক্যে সম্ভাষণ করিবে । মিষ্টবাক্য অপেক্ষা শ্রেষ্ঠবশীকরণ অার নাই। শত অপরাধও মিষ্টকথায় তৎক্ষণাৎ ক্ষলিত হইবার সস্তাবনা। ইহা জানিয়া সৰ্ব্বদ মিষ্টবাক্য প্রয়োগ করা উচিত। যাহারা প্রিয়বাদী তাহারাই দেবতা এবং যাহার কুরবাদী তাহারাই পণ্ড। ভক্তি ও আস্তিকতাপূর্ণদ্বদয়ে সৰ্ব্বদা দেবপূজা বিধেয় । দেবতাবৎ গুরুজনের ও আত্মবৎ সুহৃদদিগের সাদর সস্তাষণ করা উচিত । প্ৰণিপাত দ্বারা গুরুকে, সত্য ব্যবহারে সাধুকে, মুক্ত কৰ্ম্মে দেবতাদিগকে, প্রেম বা দানে স্ত্রী ও ভূতাদিগকে এবং দক্ষিণ্য দ্বারা ইতর জনকে বশীভূত ও অভিমুখ করিবে । পরকার্য্যে অনিন্দ, স্বধৰ্ম্মের পরিপালন, দীনে দয়, সৰ্ব্বল