পাতা:বিশ্বকোষ দশম খণ্ড.djvu/৬৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


নাশিৱ-উল-মুলক বিষয় সকল চিন্তা করিতে করিতে পুরুষের আসক্তি জন্মে, এই আসক্তি হইতে অভিলাষ, অভিলাষ হইতে ক্রোধ, ক্ৰোধ হইতে মোহ, মোহ হইতে স্মৃতিভ্রংশ, স্মৃতিভ্রংশ হইতে বুদ্ধিনাশ ও বুদ্ধিনাশ হষ্টতে বিনাশ উপস্থিত হয়। অসত্যাচরণ, পারদার্থ, অভক্ষ্যতক্ষণ, অশ্রেীতধৰ্ম্মাচরণ অর্থাৎ শাস্ত্রানুসারে না চলা, এই সকল করিলে অচিরে কুলনাশ হয়। জব্রাহ্মণ ও বৃষলকে বেদশিক্ষা দিলেও শীঘ্ৰ কুলনাশ হয়। “অমৃতাৎ পারদর্ষ্যিাচ তথাভক্ষ্যস্ত ভক্ষণাৎ । অশ্রেীতধৰ্ম্মাচরণাৎ ক্ষিপ্ৰং নশুতি বৈ কুলম্। অশ্রোত্রিয়ে বেদদানাৎ বৃষলেষু তথৈব চ। বিহিতাচারহীনেযুক্ষিপ্ৰং নগুতি বৈ কুলম্।" ( কোম্ম উপবি” ১৫ অ• ) বিনষ্ট হইবার পুর্ণরূপ। মৎস্তপুরাণে এইরূপ লিখিত আছে— পুরুষ আচার পরিত্যাগ করিলে দেবতা তাহাদিগকে পরিত্যাগ করেন, তখন নানা উপসর্গ উপস্থিত হয়, এই উপসর্গ ৩ প্রকার দিবা, আন্তরীক্ষ ও ভেীম। গ্রহ ও নক্ষত্রগণজনিত দিবা, উল্কাপাত, দিগাহ প্রভৃতি অন্তরীক্ষ এবং ভূকম্পন, জলাশয়াদি দুষিত হওয়া ভৌম উপসর্গ। এই সকল উৎপাত দেখিলে নাশের পূৰ্ব্বলক্ষণ বলিয়া জানিতে হইবে। ( মৎস্তপু ২০৩ অ' ) নাশক (ত্রি) নাশয়র্তীতি নশ-ণিচূ-খুল। ধ্বংসক, ক্ষয়কারী, যে নাশ করে । "তে পরস্বাপহস্তারঃ পরস্বনাঞ্চ নাশকাঃ।” (ভারত ১৩২৩ অ’) নাশন (ত্রি ) নাশয়তীতি নশ-ণিচ-লু। ১ নাশক । “ত্ৰিবিধং নরকম্ভেদং দ্বারং নাশনমাত্মনঃ ” ( গীতা ১৬২১ ) ( ক্লী ) ২ উচ্ছেদন, বিলোপন । নাশয়িত্রী ( ) নাশকত্রী ।

  • “নাশয়িত্রী বলাসন্তাশসঃ” ( শুক্লযজু ১২৯৭ )

‘নাশয়িত্রী নাশকত্ৰী' ( বেদদীপ ) নাশিত (ত্রি ) বিনাশিত, নিহত । নাশিন (ত্রি) নাশঃ অস্ত্যন্তেতি নাশ-ইনি। নাশবিশিষ্ট, নাশক । যাহা চিরস্থায়ী নহে, নশ্বর । “নগুতে রিনিপাতে তাবনিপাতে ত্বনাশিনে ॥” ( মমু ৮.১৮৫ ) নাশির-ই-খজ্ঞ, একজন পারসিক কবি। হিজিরা ৫ম শতাব্দীতে বর্তমান ছিলেন । ইনি ভাবুক কবি এবং মুসলমানধৰ্ম্মাবলম্বী সিয়াসম্প্রদায়ভুক্ত। সম্রাট আকবরশাহের রাজত্বকালে ইহার কবিত্বের বিশেষ আদর ছিল । ইহার প্রণীত গ্রন্থের মধ্যে ফরহঙ্গ-ই-জাহাঙ্গারি উল্লেখযোগ্য। " নাশিক্ব-উল-মুলক, বীরবীন্দ্রদেশবাসী একজন মাের। [ ون ] বখন বৈরাম খাঁ কান্দাহারে অবস্থান করেন, তখন ইনি | নাশির উদ্দীন মাঙ্ক, ro খ। সাহেবের বিশেষ অঙ্কুরক্ত ছিলেন। ইহার আসল নাম मैग्न भझन्झन थे । रुथन प्रकरुग्न निर्झौग्न निश्झां★ान श्रशिक़? श्न, उ५न हेमि ?रब्राrयह गांशrश भागैब्रभtन प्लेौ७ ছয়েন। ইহার কিছুদিন পরে পীর মহন্ধদ আলবীরাজ হাজিখার বিরুদ্ধে যুদ্ধযাত্র করেন। হাজি খাঁ পলায়ন করিলে তিনি আলবার ও দেsলী-লাচারি নামক স্থান সরকারভুক্ত করিয়া লইলেন এবং হিমুর পিতাকে ধরিয়া আনিয়া তাহাকে ইসলাম ধৰ্ম্মে দীক্ষিত হইবার জন্ত অনুরোধ করেন। তিনি অসম্মতি প্রকাশ করিলে পীর মহম্মদ তাহার প্রাণসংহার করেন এবং লুণ্ঠনদ্রব্য সঙ্গে লইয়া আকবর সমীপে উপস্থিত হইলেন। দেওলী-সাচারি হিমুর জন্মভূমি। এই যুদ্ধে হিমুকে পরাস্ত করায় ইনি নাশিবৃ-উল-মুলক উপাধি প্রাপ্ত হন। উক্ত উপাধিতে ভূষিত হইয়া ইনি এতই গৰ্ব্বিত হইয়াছিলেন যে, নিজের একমাত্র আশ্রয়স্বরূপ বৈরামকে অবজ্ঞা করিতে ক্রটা করেন নাই। অবশেষে সেখ, গড়াইএর প্ররোচনায় বৈরাম ইহাকে বিয়ানাচুর্গে আবদ্ধ রাখেন, পরে ইহাকে তীর্থযাত্রা করিতে অনুমতি দেন। বিয়ান হইতে গুজরাত-যাত্রাকালে পথিমধ্যে ইনি আধম খা প্রেরিত একখানি পত্র পান। ঐ পত্রের মৰ্ম্মানুসারে রণস্তস্তগড়ে কিছুদিন অবস্থান করেন । যখন শুনিলেন, বৈরাম খার অঙ্গুচরগণ পশ্চাৎ অনুসরণ করিয়াছে, তথম ইনি পুনরায় গুর্জর অভিমুখে যাত্রা করিলেন। বৈরামের এই অসদ্ব্যবহারে আকবরশাহ দুঃখিত এবং ক্রোধাম্বিত হইলেন । পীর মহম্মদ বৈরামের লাঞ্ছনা ও অবমাননার বিষয় অবগত হষ্টয়া পুনরায় দিল্লীতে আগমন করিলেন, সম্রাট আকবর ইহাকে ‘খ’ উপাধি দান করিলেন। ৯৬৮ ছিজিয়াতে ইনি সম্রাটের আদেশে মালবজয় করিতে যান এবং ইহার সহযোগী অধম ফিরিয়া অসিলে ইনি মালবের শাসনকর্তা নিযুক্ত হন। ৯৬৯ হিজিরায় বাজবাহাদুর মালব আক্রমণ করেন, তিনি পরাস্ত হইলে নাশির তাহার রাজ্য বিজ্ঞাগড় অধিকার করিলেন। ইহার পর ইনি খাদেশ অভিমুখে যাইয়া বুরহানপুর রাজধানী লুট করেন, এবং লন্ধদ্রব্য লইয়। পলাইবার পথে বাজবাহাদুর কর্তৃক আক্রান্ত হন, কিন্তু পলায়নকালে নৰ্ম্মদীয় জলমগ্ন হইয়া নদীগর্ভে বিনষ্ট হন । নাশির উর্দীন মাহ্মুদ, দিল্লীর দাসষংশীয় রাজগণের মধ্যে নবম । হিজিরা ৬৪৪ হইতে ৬৬৪ অথবা ১২৪৬ ফষ্টতে ১২৬৫ খৃষ্টীবা পর্যন্ত ২০ বৎসর কাল রাজত্ব করেন । তিনি দিল্লীর সুলতান আলতামসের সর্বকনিষ্ঠ পুত্র। ১২৪৬

  • এলফিনষ্টোন, মাসম্যান, বিস্তারিজ ও রবাট সিউয়েল প্রকৃতি ঐতি