পাতা:বিশ্বকোষ দ্বাদশ খণ্ড.djvu/৫০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পুতিকর্ণ [ 8w পূতিকাহা - রজনীগুপ, স্বমনস্, পৃতিকণিক, কৈড়র্ঘ্য, কলিমাল্য। পূতিকর্ণক (পুং ) পুতি কর্ণে বস্তাং কল্প। পুতিক রোগ। DDB BBBS BBBS BB BB BBS BBBBS BBS BBS BBBS BB BBBBB BBBS BB BBtS চিকা, কুণ্ঠ ও ত্বগৃঘোষনাশক । ( রাজনি" ) ভাবপ্রকাশমতে পর্যায় করঞ্জ, নব্রুমাল, করজ ও চিরবিৰক | | ইহার গুণ-কটু, তীক্ষ, উষ্ণবীর্ঘ্য এবং যোনিরোগ, কুষ্ঠ, উদাবৰ্ত্ত, গুল্ম, অৰ্শ, ব্রণ, কৃমি ও কফনাশক। ইহার পত্রগুণ— কফ, বায়ু, অৰ্শ, কৃমি ও শোধনাশক, ভেদক, কটুবিপাক, উষ্ণবীৰ্য্য, পিত্তবৰ্দ্ধক ও লঘু। ফলগুণ—কফ, বায়ু, প্ৰমেহ, অর্ণ, কৃমি ও কুণ্ঠনাশক। (ভাবপ্র পূর্বখ” ) তিকণ (পুং) পূতিগন্ধ; কর্ণে যক্ষাৎ কর্ণরোগবিশেষ। ইহার লক্ষণ-কুপিত দোষ, কর্তৃক ক্ষত কিংবা অভিঘাত । হইতে কৰ্ণবিধি উৎপন্ন হয়, এই কৰ্ণবিগ্রধি পাকিলে বা কর্ণে জল প্রবেশ করিলে কর্ণ হইতে দুৰ্গন্ধযুক্ত পুযস্রাব হইলে তাহাকে পুতিক কহে। এইরোগে কৰ্ণ হইতে পুত্ব নির্গত হয় এবং কাণ কামড়াইতে থাকে। ইহার চিকিৎসা-ছোলঙ্গনেবুর রসে স্বর্জিকাক্ষার চূর্ণমিশ্রিত | করিয়া কর্ণে পূরণ করিলে কৰ্ণশ্রাব, বেদন ও দাহ প্রশমিত হয়। আম, জং, (জাম ) মধুক ও বটের নূতন পত্রার পক্ষতৈল করিয়া এবং জাতীপত্রদ্বারা তৈল পাক করিয়া কর্ণে পূরণ করিলে পুতিকর্ণরোগ আগু প্রশমিত হয়। নারীষ্কার রসায়ন পেষণ করিয়া মধুর সহিত একত্র কর্ণে পুরণ করিলে বহুকালোৎপন্ন কর্ণস্রাব ও পুতিকর্ণ নষ্ট হয়। কুড়, হিঙ্গু, বচ, দেবদারু, শুল্ফ, গুঞ্জ ও সৈন্ধব ইহাদ্বারা তৈলপাক করিয়া বস্ত্রদ্বারা ছাকিয়া কর্ণে পূরণ করিলে এই রোগ আণ্ড প্রশমিত হয়। এইরোগে গুগগুলুর ধূমও বিশেষ উপকারী। (ভাবপ্র) মুশ্রাতর মতে—সুরসাদিগণের কাথে প্রথমে উত্তমরূপে কাণ । ধুইয়া তৎপরে স্বরসাদিগণের চুর্ণ কৰ্ণে পূরণ করিলেও এই রোগ প্রশমিত হয়। নিসিন্দার রসম্বারা পাককরা তৈল অথবা মধু সংযোগে নিসিনার রস, গৃহপূম ও গুড় একত্র কর্ণে পূরণ করিলে পুতিক রোগ আরোগ্য হয়। (স্বত্রত উত্তরত ২৬ অ') বালকের পুতিকৰ্ণ রোগ জন্মিলে, তাহাতে নিম্নলিখিত তৈলৌষধ উপকারী।–প্রস্তুত প্রণালী-তিলতৈল ১ সের। কন্ধাৰ্থ বহেড়া, কুড়, হরিতাল, মনছাল, প্রত্যেক ৪ সের, পাকের জল ১৬ সের। ( ভৈষজ্যরত্নী” বালরোগাধি” ) বরুণ, আর্দ্র, কপিখ, আম্র ও জম্ব, এই সকলের পত্র জাতীফুলের পাতাদ্বারা তৈল পাক করিয়া কর্ণে পূরণ করিলে পুতিকর্ণরোগ প্রশমিত হয়। "বরুণাদ্রকপিখাম্রজম্ব,পল্লবসাধিতং। } পুতিকর্ণাপহং তৈলং জাতীপত্ররসেন বা " (চক্রপাণিদত্ত ) ( রাজনি" ) ২ কীটবিশেষ । “পুলক ইব ধান্তেযু পুতিক ইৰ পক্ষিণু। মশক ইব মৰ্বেষু যেযাং ধৰ্ম্মে ন কারণম্।।” (পঞ্চতত্ব ৩৯৯) ৩ লতাশাক বিশেষ। পুইশাক। ( Basella Rubra ) পৰ্যায়-কলম্বী, পিচ্ছিল, পিচ্ছিলচ্ছদ, মোহনী, মশাক, বিশাল, বলিপোদকী। ইহা তিনপ্রকার, সামান্ত, ক্ষুদ্রপত্রা ও বনজাত । ইহার গুণ-কটু, মধুর ও নিদ্রা, আলস্ত, রুচি, বিষ্টন্ত ও শ্লেষ্মকারক । ( রাজনি’ ) ব্রাহ্মণাদি বর্ণের এই শাক ভোজন নিষিদ্ধ। এই শাকভোজনে ব্ৰহ্মহত্যার পাতক হয়। দ্বাদশীর দিনও এই শাকভোজন নিষিদ্ধ হইয়াছে। ইহাতে কেহ কেহ বলেন, পুতিকাভক্ষণ সামান্ততোনিষিদ্ধ, আবার দ্বাদশীর দিন ইহার নিষেধের কারণ কি, ইহার মীমাংসা এইরূপ শূদ্রাদির ইহা ভক্ষণে দোষ নাই; কিন্তু শূদ্রাদি বর্ণ স্বাদশীর দিন ইহা ভক্ষণ করিতে পারিবে না এবং ব্রাহ্মণাদি বর্ণ যদি দ্বাদশীর দিন ভক্ষণ করেন, তাহা হইলে তাহারও বিশেব দোষ হইবে। “পুতিক ব্ৰহ্মঘাতিক, যপি— কুকুন্তং নালিকাশাকং বৃন্তকং পৌতিকীং তথা । তক্ষয়ন পতিতন্তু স্তাপি বোস্তগো দ্বিজঃ ॥ ইত্যুশনসা সামান্ততোহভিহিতং। পুতিক চ দ্বাদপ্তামধিকদোষায় শুবিষয়িক বা ॥” (তিথিতৰ ) তাও ব্রাহ্মণে লিখিত আছে, পূতিকা সোমের অংশ হইতে উৎপন্ন হইয়াছে, এই জন্য যদি সোমের অভাব হয়, তাহা হইলে সোমের প্রতিনিধিরূপে অর্থাৎ সোমের বদলে ইহা লওয়া যাইতে পারে । “তস্ত যে ক্রিয়মাশন্তাংশবং পরাপতংস্তে পুতীক অভবন" (তাও ব্রা" ৮৪৫৩) ‘পুতীকাচ্ছাদণে দীর্ঘ; ক্ৰিয়মাণন্ত সোমন্ত পতিত অংশবঃ পুতিক অভবন, তস্মাৎ সোমাভাবে পুতিকাদীনাং প্রতিনিধিত্বেন স্বীকৰ্তব্যতামভিধাতুমিতি ( ভাষ্য) পূতিকামক্ষিক (স্ত্রী) পৃথুমধুমক্ষিকাবিশেষ। চলিত ডাশ মাছি। (বৈদ্যকনি” ) পুতিকামুখ (পুং ) পূতিকায় মুখমিব মুখং যন্ত। শাক। ( শব্দমালা ) পূতিকাষ্ঠ (কী) পুতিকাঃমিতি কৰ্ম্মধা। ১ দেবদারু, সরল सूक् । २ अङ्गिनाक्र। পূতিকাষ্ঠক (কী) পৃতিকাষ্ট-স্বার্থে কর্ন। সরলবৃক্ষ। শেখচ) পূতিকাহ (পুং) পুতিবরং। (বৈাকনি)