পাতা:বিশ্বকোষ প্রথম খণ্ড.djvu/৬৫২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


अबोलि সাধিত পদের স্থলে যেখানে এক বচনান্ত প্রয়োগ করিয়াছেন সেই থানেই এক বচনান্ত প্ররোগ হইবে । অবউীমাং নিবাসো জনপদ অবস্তয়ঃ, এখানে এই রূপ বহুবচনাস্ত হয়। আবার ব্রহ্মাবৰ্ত্তানং নিবা সো জনপদঃ ব্ৰহ্মাবৰ্ত্তং, এথানে এই রূপ এক বচনান্তই প্রয়োগ হইয়৷ থাকে। তাই, কবিকুলচূড়ামণি কালিদাস, মেঘদূতের মধ্যে ঐ উভয় প্রকার প্রয়োগ গ্রহণ করিয়াছেন । যধা,—‘প্রাপ্যাবস্তীন । পুং মেঘং । ৩০ । ইহা বহুবচনাস্ত পদের নিদর্শন ! “ব্রহ্মাবৰ্ত্তং জনপদমথচ্ছায়য়া গাহমান: । পু• মেঘ০ । ৪৮। তৎপরে ব্রহ্মাবৰ্ত্ত নামক জনপদে ( দেশে ) ছায়া দ্বারা অবনত হইয়া । ইহা এক বচনান্ত পদের নিদর্শন। তজ্জন্ত বিশ্বকোষের অবস্তি শব্দে কএকটী বহুবচনাস্ত জনপদ শব্দ দেখাইয়া অবশেষে লেখা হইয়াছে যে, ইহার অন্যথাও দেখা যায় । অশীত (ক্লী) ন শীতং বিরোধে নঞ তৎ । উষ্ণস্পর্শ । যে বস্তু স্পর্শ করিলে উষ্ণ বোধ হয় । ( ত্রি ) কালভেদে নাস্তি শীতং যস্য । নঞ বহুব্রী । শীতশূন্য । যাহাদের শীত গত হইয়াছে। এ বিযয়ে প্রাচীন একটা শ্লোক আছে। যথা,--- অশীতাস্তয়বো মাঘে ফাত্ত্বনে পশুপক্ষিণ: | চৈত্রে জলচরাঃ সৰ্ব্বে বৈশাথে নরবান রাঃ । মাঘমাসে বৃক্ষ সকল শীত রহিত হয়, ফাল্গুন মাসে পশু ও পক্ষীগণের শীত যায়, চৈত্র মাসে জলচর জন্তু সকলের শীত থাকে না এবং বৈশাখ মাসে মানুষ ও বানয়ের শীত এক কালে বিদূরিত হয় । অশীতকর ( পুং ) অশীতঃ উষ্ণঃ কর: কিরণে যন্ত । ৰক্ত্রী । উষ্ণাংশু । স্বৰ্য্য। অশীতfকরণ প্রভৃতি শব্দও এই অর্থে প্রযুক্ত হয়। আশীতম (পুং ) অশ্নতি অশ ভোজনে-(সৰ্ব্বধাতুভ্য ইন্‌ ! উণ । ৪ । ১২৭ ) ইতি ইন ততঃ মতুপ, বেদে দীর্ঘঃ ! ভোক্তার প্রধান, অগ্নি । যিনি সকলই ভোজন [ ও২৮ ] অশুভ্র তনে সিদ্ধ হয় । আশীর্ষিক (ত্রি) নাস্তি শীৰ্ষং যস্ত । * শ্ৰীহাদিভ্যশ্চ । পী । ৫। ২। ১১৬। ইতি ঠন মস্তক রহিত। অস্ত্রশূন্য। অশীল ( ক্লী ) ন শীলং বিরোধে নঞ তৎ। দুষ্টশীল । দুষ্টস্বভাব । (ত্রি) নাস্তি শীলং যন্ত । শীলতাশূন্য। দুঃশীল। নঞ বহুত্রী। অশুচ (স্ত্রী । ন শুক অভাবে নঞ তৎ। শোকের অভাব। (ত্রি ) নাস্তি গুগস্ত । নঞ বহুত্ৰী। শোকশূন্য। অশুচি (ত্রি) অভাবে নঞ তৎ। অগ্নি নহে। আষাঢ় মাস নহে। শুক্ল বর্ণ নহে। কৃষ্ণ বর্ণ। শৃঙ্গার রস নহে। শৌচ শূন্য। অপবিত্র। (স্ত্রী) উীপ অগুচী। অশুচি অর্থ । (ত্রি ) কৃষ্ণবর্ণ যুক্ত। ( ক্লী) অণ্ডচেৰ্ভাব: অণ অশৌচ ৷ ষ্যঞ । আশোচ্য। অশুচিভাব। বা পূৰ্ব্বপদ বৃদ্ধি অশৌচ। অশুচিভাব। অগুচে ভবঃ (ত্রি) অশোচ্য আশোচ্য। যাহা অশোচে জন্মিয়াছে। অশুদ্ধ (ত্রি ) ন শুদ্ধং বিরোধে নঞ তৎ। শুদ্ধ নহে। দোষযুক্ত। অপবিত্র। কোন বিযয় নান! প্রকারে অশুদ্ধ হইতে পারে । কোন একটা পদ লিখিবার সময়ে ব্যাকরণাদি লক্ষণানুসারে বিহিত কাৰ্য্য না করিলে তাহাকে দুষ্ট বা অশুদ্ধ বলা যায়। শাস্ত্র নিষিদ্ধ কৰ্ম্মের অনুষ্ঠানের নাম দোষ । উক্ত দোষে দুষিত ব্যক্তি বা দ্রব্যকে দুষ্ট বা অশুদ্ধ বলা যায়। যে দ্রব্য স্পর্শ করিলে স্নান না করিলে শুদ্ধিলাভ করা যায় না, তাহার নাম দুষ্ট । তৎস্পশকারী ব্যক্তিকেও দুষ্ট বা অশুদ্ধ বলিয়া থাকে। স্বাস্থ্যের অভাবে শারীরিক যে বাতপিত্তাদির দেয জন্মে, তদ্বিশিষ্ট ব্যক্তিকে দুষ্ট বা অশুদ্ধ কহে । রজস্বল হইলে স্ত্রীলোকেরা অশুদ্ধ হইয়াছে, এই রূপ কথিত হয় । বৃহস্পতি ও শুক্রের বাৰ্দ্ধক্য, অস্ত ও বাল্যাদিতে কাল অশুদ্ধ হর । কোন একটা শব্দ লিখিতে লিপিকর প্রমাদ বা খুলনাদি দোয জন্মিলে তাহাকেও অশুদ্ধ কহে । করেন । অশীতি (স্ত্রী) অষ্টানাং দৃশতাম্ আশীভাব: তিঃ প্রত্যয়শ । অষ্টো দশতঃ পরিমাণমস্ত । আশী সংখ্যা । আশী সংখ্যা অশুদ্ধি (স্ত্রী ) নঞ তৎ। শুদ্ধির অভাব। দোষ। (ত্রি ) নাস্তি শুদ্ধির্যস্ত। নঞ বহুব্রী । শুদ্ধিহীন । দুষ্ট। অশুদ্ধ। অশুভ ( ক্লী ) নঞ তৎ। অমঙ্গল । তৎস্বচক মঙ্গলাদি বিশিষ্ট । (ত্রি) আশী সংখ্যা পরিমিত চলিত কথায় অশীতিকে আশী কহে। * । পঙক্তি বিংশতি ত্রিংশচত্বরিংশংপঞ্চাশংষষ্টিসপ্তত্যশীতিনবতিশতম্ । প৷ ৫ ৷ ১ ৷ ৫৯। পংক্তি, বিংশতি, ত্রিংশৎ চত্বারিংশং, পঞ্চাশং, পাপগ্রহ। অপবিত্র। (ত্রি ) নাস্তি শুভং যম্মাৎ । নঞ - ৫ বহুত্ৰী। অশুভবিশিষ্ট । ( ক্লী ) পাপ । যাত্রাকালে কাকাদির ডাক ও শূন্য কলসী প্রভৃতিও অশুভেয় মধ্যে পরিগণিত । kBBS BBBS BBBS BBBS BB DD BBBB BBBS BBSBBS BBSBBS BB DDS BBSBSS BBBBB