পাতা:বিশ্বকোষ সপ্তদশ খণ্ড.djvu/৩৯০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বঙ্গদেশ { அ} ) বঙ্গদেশ অঙ্গে বঙ্গঃ কলিক্ষ পুণ্ডঃ সুহ্মণ তে স্থতাঃ। তেষাং দেশাঃ সমাখ্যাতাঃ স্বনামগুখিত ভুবি। অঙ্গস্তাঙ্গো ভবেদেশে বঙ্গে বঙ্গস্ত চ স্বতঃ ॥ কলিঙ্গৰিবশ্চৈৰ কলিঙ্গন্ত’ ল স্বতঃ। পৃংস্ক পুণ্ড প্রখ্যাত স্বন্ধ মুন্ধস্ত চ স্থতাঃ। এবং বলেঃ পুরা অংশ: প্রখ্যান্তে বৈ মহর্বিজঃ ।” ( छग्निष्ठ ०॥४०8॥8१-४२) এই ৰঙ্গ হইতে বাঙ্গালী জনপদের প্রতিষ্ঠা হয় । [ বঙ্গদেশ পদে পুরাবৃত্ত দেখ ] ২ কার্পাস। ( মেদিনী ) ও বাৰ্ত্তাকু । शत्रुक्क (ौ) बन्ना९ श्ाङ्कुत्थिशा९ आकर्ड हेकि अन-७ । ১ সিন্দুর । (লি) ২ বঙ্গদেশ জাত । ৩ বঙ্গদেশৰালী কায়স্থ, বৈষ্ম পড়তি জাতির শ্রেণীবিভাগভেদ । ইহা দক্ষিণ-রাঢ়ীয় শ্রেণীর অন্যতম শাখ বলিয়া পরিচিত। ঐ শাখা বঙ্গদেশের পুৰ্ব্বাঞ্চলে আসিয়া বাস করায় বঙ্গজ আখ্যা প্রাপ্ত হষ্টয়াছে । ৪ পিত্তল । সঙ্গঞ্জীবন ( ক্লী) রৌপ্য । বঙ্গদেশ (পুং স্বনামপ্রসিদ্ধ ভারতীয় দেশভাগ। ভারতের উত্তর পূৰ্ব্বাংশে হিমালয় পাদ কষ্টতে দক্ষিণে সমুদ্রতট পৰ্য্যন্ত বিস্তুত । বঙ্গভূমি, বঙ্গরাজ্য, বাংলা বা বাঙ্গাল নামে পরিচিত। ভারতলর্যের পূৰ্ব্বোস্তুর প্রাৰীি পুণ্যতোয় গঙ্গানদীপ্রবাহিত ‘ব’ ষ্ঠীপাংশ লষ্টয়া এই রাক্ত্য গঠিত। বহু প্রাচীন কাল হইতেই : এই মহাসমৃদ্ধ গুনপদের বাণিজ্যখ্যাতি সুদূর আরব ও চীন- | সামাঙ্গা পর্যান্ত বাপু ছিল এবং এতদেশবাসীর জ্ঞানবস্তু ও বুদ্ধিময়ার পরিচয় এবং শিল্পাদি বিভিন্নবিষয়িণী কলাবিদ্যার প্রখর । পষ্ঠীৰ চতুৰ্দ্দিকে রাষ্ট্র ছষ্টয়াছিল । বৈদেশিক বণিক-সম্প্রদায় সমুদ্রপথে,আসিয়া এখানকার সুবর্ণগ্ৰামাদি বন্দর হষ্টতে এতদেশস্থাত বচ্চতর দ্রব্য লইয়া যাইতেন। সেই সময় হইতেই বাঙ্গালার গৌরব দিগন্তু বিস্তুত চয় । বঙ্গের দক্ষিণপ্রাস্তুস্থিত সমুদ্রভাগ ও দেশের নামে বঙ্গোপসাগর এবং বঙ্গবাসীও তদবধি বাঙ্গালী নামে ধিনিত কষ্টয়াছিল। ভারতবাসী অস্তান্ত জাতি ফইতে এই BBDD DBB DBBBBB BBBB BDD DDBB B BBBB দান করিয়াচে । मथिfभङ्गfख़ । এই বিশাল বাঙ্গালী রাজ্য মহাভাৱষ্ট্ৰীয় যুগে কিরূপ সীমাবদ্ধ ছিল, তাহাৰ সঠিক কোন ৰিষরণ উদ্ধায়ের উপায় নাই। তৎকালে বঙ্গরাজ্ঞা কেৰল জঙ্গ রাজ্যের পার্শ্ববর্তী জনপদ বলিয়া উক্ত ছিল । তৎপরবর্তী ফালে যখন বঙ্গবাসী জ্ঞামমার্গে উন্নীত হইয়া 漫縣 矚 - - তন্ত্রের মহিমাবিষ্কার এবং প্রতাৰ-প্রচার প্রসঙ্গেই বাঙ্গালার দৈর্ঘ্য ও বিস্তার কল্পনা করির লম. তাই আমরা শক্তিসঙ্গমতন্ত্রে বাঙ্গালার একটা সীমানির্দেশ দেখিতে পাই । [ বঙ্গ দেখ। ] তবকাৎ-ই-নাসিয়ি নকি মুসলমান ইতিহাস অনুসরণ করিলে আমরা জানিতে পারি যে, বাঙ্গালায় সেনবংশীয় শেষ নরপতি মহারাজ লক্ষ্মণ সেনকে পরাজয়পূৰ্ব্বক মহম্মদ-ইদ্বখণ্ডিয়ার বাঙ্গলা জয় করিয়াছিলেন। তাহার আগমনে লক্ষ্মণাবতী, বেহার, বঙ্গ ও কামরূপজলপদবাসিগণ মহাতীত হইয়াছিলেন্স ৫ মার্কে পোলো ( ১২৯৮ খৃ: ) লিথিয়াছেন, ১২৯০ খৃষ্টাঙ্গ পর্য্যন্ত বাঙ্গাল বিজিত হয় নাই। ৰঙ্গ উক্ত জলপদ চতুষ্টয়ের দক্ষিণভাগে অবস্থিত ছিল। উক্ত ছুইটী বিবরণী পাঠ করিলে বেশ বুঝা যায় যে, মুসলমান সমাগমের পূৰ্ব্বে প্রাচীন বঙ্গরাজ্য চারি খাও বিভক্ত হইয়া পড়িয়াছিল। মার্কোপোলো তাহারই দক্ষিণাংশকে বাঙ্গালী বলিয়া উল্লেখ করিয়া গিয়াছিলেন । রসিদউদ্দীন বলেন, আনুমানিক ১৩০০ খৃষ্টাৰৰ বঙ্গ দিল্লীশ্বরের অধীন হয়। ১৩৪৫ খৃষ্টাব্দে ইবন বতুতা বঞ্চাল৷ ( বাঙ্গাল ) রাজ্যের ও তথাকার ধান্ত-প্রাচুর্য্যের উল্লেখ করিয়াছেন । তিনি আরও বলেন যে, খোরাসামবাসী এতৎপ্রদেশকে বিবিধ উৎকৃষ্ট দ্রব্য পরিপূর্ণ নগর বলিত ; সুপ্রসিদ্ধ কবি হাফিজের ( ১৩৫১ খু: ) কবিতায় বাঙ্গালায় উল্লেখ দেখা যায় ॥৯ ভাস্কো দা-গামা ১৪৯৮ খুঃ বাঙ্গালার মুসলমানপ্রাধান্ত এবং এখানকার কাপাস ও রেশমী বস্ত্র, রৌপ্য প্রভৃতির বাণিজ্য দ্রব্যের উল্লেখ করিয়াছেন । তিনি বলেন, সুবাতাসে ৪০ দিনে কলিকট্র হইতে বাঙ্গালায় আসা যায়। এতদ্ভিন্ন ১৫০৬ খুষ্টাব্দে লিওনার্দো ১৫১০ খৃষ্টাব্দে বার্থেমা ও ১৭১৬ খৃষ্টাব্দে বাৰ্ব্বোসা বাঙ্গাল রাজ্যের ও তদেশবাসীর বাণিজ্যাদি বিবরণ লিপিবদ্ধ করিয়া যান। আবুল ফজলকৃত আইন-ই-অকৃবরী নামক মুসলমান ইতিহাসে বাঙ্গাল শব্দের একট ব্যুৎপত্তি প্রদত্ত হইয়াছে । তিনি লিথিয়া- - ছেন যে, প্রাচীন কালে এই জঙ্গপদ বঙ্গনামে উল্লিখিত হইত। * বঙ্গের পূৰ্ব্বতন হিন্দুরাজগণ পৰ্ব্বতপাদমূলস্থ নিম্নভূমিতে মৃত্তিকার বঁধে বা অাল দিতেন । বাঙ্গালার বস্থস্থানে উক্ত রাজন্তবর্গের বিনিৰ্ম্মিত ঐক্লপ বহুশত আল বিস্তুমান দেখিয়া জালনুক্ত বঙ্গ অর্থে বঙ্গাল' নামকরণ হইয়াছে। সম্রাটু জরঙ্গজেব বাঙ্গালার তাঞ্জিক আলোকলাত করিয়াছিলেন, সেই সময় হইতেই তাহার

  • Tabaknt-i-Nasiri Ell'ot. ii, 507. + Marco Polo Bk. ii, ch. 55. ! Ibn Batuta. iy. 210. s *कब्र निरुम् भाषन्त्र, हान् छूछिद्रान्-३-श्ण । 懿 जीन्५च २-गाङ्गनी किश्च লাল দিন। ( हॉकिंझ } 1 Roteiro de Vala Gama 2nd. ed. p i 10. .