পাতা:বিশ্বকোষ সপ্তদশ খণ্ড.djvu/৫৫১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


* বরাহ [ to J বরাজ বিধায়ক যজ্ঞ সকল মেঢ় সন্ধি হইতে ; রাক্ষসযজ্ঞ, সপর্যজ্ঞ প্রভৃতি সকল প্রকার অভিচার ঘঞ্জ, গোমেধ এবং বৃক্ষজাপ প্রকৃতি যজ্ঞ ক্ষুর হইতে ; মায়েষ্ট, পরমেই, গীম্পতি, ভোগজ এবং অগ্নিবোম যজ্ঞ লাঙ্গলসদ্ধি হইতে : তীর্থপ্রয়োগ, মাস, সঙ্কর্ষণ, আর্ক এবং আথৰ্ব্বণ নামক যজ্ঞ নাড়ীসদ্ধি হইতে ; ঋচোৎকর্ষ, ক্ষেত্রযজ্ঞ, পঞ্চমার্গ, লিঙ্গসংস্থান এবং হেরম্ব্যঞ্জ জামুদেশ হইতে উৎপন্ন হইল। এইরূপে বরাহের দেহ হইতে অষ্টাধিক সহস্ৰ যজ্ঞ উৎপন্ন হুইয়াছিল। অস্থাপিও এই সকল যজ্ঞ প্রজা সকলের উৎপত্তি সাধন করিতেছে । বরাহের শ্রোত্র হইতে ক্রক, নাসিক হইতে ক্ৰব, গ্রীব হইতে প্রাকৃবংশ ( হোমগৃহের পূর্বভাগস্থ গৃহ ), কর্ণরন্ধ হইতে ইষ্টাপূৰ্ত্ত, দন্ত হইতে ধূপ, রোম হইতে কুশ, দক্ষিণ ও বামপাদ হইতে অধ্বষু ও হোতা, মস্তিষ্ক হইতে পুরোডাশ,মধ্যদেশ হইতে বজ্ঞবেদী, এবং মেঢ় হইতে যজ্ঞকুণ্ড, পৃষ্ঠদেশ হইতে যজ্ঞগ্ৰহ এবং হৃৎপন্ন হইতে যজ্ঞের উৎপত্তি হইল। বরাহের আত্মা যন্ত্রপুরুষ হইলেন, তাহার কক্ষ হইতে মুঞ্জার উৎপত্তি হইল । এইরূপে বরাহের দেহ হইতে ভাও হবিঃ প্রভৃতি বুল্লীয় সকল প্রকার দ্রব্যই উৎপন্ন হইল। যজ্ঞরূপে সৰ্ব্বজগৎ আপ্যায়িত করিবার নিমিত্ত বরাহদেবের দেহ যজ্ঞরূপে পরিণত হইল । ব্ৰহ্মা, বিষ্ণু ও মহেশ্বর এইরূপে যজ্ঞের সৃষ্টি করির বরাহদেবের হবৃত্ত, কনক ও ঘোর নামক মৃত পুত্রদিগের নিকট গমন করিয়া সুবৃত্তাদির দেহত্রয়কে মুখবায়ু সঞ্চারিত করিলে সেই দেহ হইতে দক্ষিণাগ্নির উৎপত্তি হইল। কেশব কনকের শরীর মুখবায়ু দ্বারা পূর্ণ করিলে সেই দেহ হইতে গাছপত অগ্নি, ও মহাদেব ঘোরের দেহ মুখপবনে পরিপূর্ণ করিলে তাহা হইতে আহবনীয় অগ্নির উৎপত্তি হইল। এইরূপে বরাহদেব হইতে যজ্ঞ ও যন্ত্রীয় দ্রব্য সকল এবং বরাহপুত্র হইতে যন্দ্রীয় অগ্নির উৎপত্তি হইল। (কালিকাপু• ১৯–২২ অ• ) বরাহমূৰ্ত্তি প্রতিষ্ঠা করিতে হইলে তাহার লক্ষণাদির বিষয় হরিভক্তিবিলাসে এইরূপ লিখিত আছে—বরাহমূর্তির মুখের বিকার অষ্টকল, কর্ণ দ্বিগোলক, হমুদেশ সপ্তাঙ্গুল, স্বক্ষণী দ্বিঅস্কুল, বন সপ্তাঙ্গুল, দশনার সান্ধ এককলা, নাসিকাবিবর তিনঘৰ, নেত্রম্বর যবহীন,মুখ ঈষদ্ধান্ত-বিরাজিত, কর্ণযুগল রন্ধছয়বিশিষ্ট সম ও আয়ত হইবে। কর্ণের মধ্যভাগ চারিকল, এবং উচ্চতা দুইকলা হইবে। গ্ৰীৰাদেশ 'শ্লষ্টাঙ্গুল, উচ্চতা নেত্রপরিমাণ, অবশিষ্ট অঙ্গ সঙ্কল নৃসিংহ দেবের স্তায় হইবে। শেষ নাগ নৃ-বরাহ দেবের চরণ ধারণ করিয়া রহিয়াছেন। বরাহ बाह बाबा दशकद्रांटरू पांद्रण रुबिब्रा जबहिष्ठ वाटझ्न । ईशद्र বাতাগে পথ ও পন্থ, দক্ষিণভাগে গঙ্গা ও চক্র। এইরূপ বরাহ দেবের মূৰ্ত্তি প্রতিষ্ঠা করিলে ভৰবন্ধন দূর হয় এবং ইহলোকে নানা মুখ সৌভাগ্য হইয়া থাকে। . "ৰক্তং কলাষ্টকায়ামং শ্রোত্রমস্ত দ্বিগোলক । ছনু সপ্তাঙ্কুলে তঙ্ক স্বৰুণী ৰাজুলে মতে ॥ সপ্তাফুলং মুখং প্রোক্তং মদে সাৰ্দ্ধকলে দ্বিজ । নাসারন্থঃ ভবেরেত্ৰং যবহীনেংক্ষিণী মতে ॥ কিঞ্চিৰঙ্কে স্মিতে শ্রোত্রে দ্বিগোলকসময়তে। চতুষ্কলং কর্ণমধ্যং তদৰ্দ্ধেন তত্ত্বচ্ছিত । বশ্বজুলী ভবেদগ্রীবা মেত্রৈকং চোয়তা তু সী। শেষং নৃসিংহবৎ কাৰ্য্যং বরাহস্ত তু বিগ্ৰহম্ ॥ শেষাহিবিধৃতং পাদং বাহন ধারা ধরাং । শঙ্খং বামে তথা পয়ং গঙ্গাচক্ৰে তু দক্ষিণে । এবং নরবরাহক কৃত্ব বঃ স্থাপরোয়ঃ। ভবোদধিসমুজ্ঞারং রাজ্যঞ্চ হতকণ্টকং ॥"(হরিভক্তিবি”১৮বি) বরাহ (পুং ) বরানু আছন্তি বর-ইন-ড। পশুবিশেষ, চলিত বর, পর্য্যায়-পূকর, দৃষ্টি, কোল, পোত্রী, কিরি, কিট, দংষ্ট্র, যোনী, স্তন্ধরোম, ক্রোড়, ভূদার, কির, মুস্তাদ, মুখলাল, স্থূলনাসিক, দস্তাযুদ্ধ, বক্রবক্ত, দীর্ঘতর, আখনিক, ভূক্ষিৎ, বহুস্থ । ( শঙ্করত্না- ) ইহার মাংসগুণ-বৃষ, বাতন্ত্র, বলবৰ্দ্ধন, বহুমূত্রকারক এবং রূক্ষ। বহুবরাহমাংসগুণ-মেদ, বল ও বীৰ্য্যবৰ্দ্ধক । ( রাজনি• ) ইহার মাংস বিষ্ণুকে নিবেদন করিতে নাই। শাস্ত্রে পঞ্চমথ জস্থর মাংস ভক্ষণ বিহিত আছে, বরাহ পঞ্চনীর মধ্যে হইলেও গ্রাম্যবরাহ ভোজন নিষিদ্ধ। বরাহমাংস ভোজন করিয়াও বিষ্ণুর পূজা করিতে নাই, যদি কেহ বরাহমাংস ভক্ষণ করে, তবে তাহার অধোগতি হইয়া থাকে। বরাহভোজী বরাহরূপে জন্ম, গ্রহণ করিয়া দশ বৎসর বনে বিচরণ করে, পরে বাধ হইয় ৭৭ বৎসর, কৃমিরূপে ৭ বৎসর, মুষিকরূপে ১৪ বৎসর, স্বাক্ষসরূপে ১৯ বৎসর, শল্পকরূপে ৮ বৎসর, পরে অাৰায় ব্যাধরূপে ৩০ বৎসর জন্মগ্রহণ করিয়া থাকে । তৎপরে বরাহমাংস ভোজনের পাপ বিনষ্ট হয়। অজ্ঞানতঃ বরাহমাংস ভোজন করিলে তাহার প্রায়শ্চিত্ত্ব করিতে হয়, ঐ প্রায়শ্চিত্ত দ্বারা পাপ ধ্বংস হইয়া থাকে। প্রায়শ্চিত্তের বিষয় এইরূপ লিখিত আছে। প্রথম ৫ দিন গোময় ভোজন, পরে ৭ দিন তণ্ডুলকপভোজন, ভৎপরে ৭ দিন কেবল জলপান, তদনন্তর ৭ দিন অক্ষারলৰণভোজন, তিন দিন শক্ত, ভোজন, ৭ দিন তিলভোজন, ৭ দিন পাষাণভোজন, তৎপরে ৭ দিন দুগ্ধপান, এইরূপে ৪৯ দিন আহার সংঘত ও জিতেজিয় হইয়া অবস্থান করিলে এই পাপ বিদূরিত হয়। এইরূপ