পাতা:বিশ্বকোষ সপ্তদশ খণ্ড.djvu/৬৯৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


दशहैधी% . রাজ বিমলেশ্বর লিঙ্গের উদেণ্ডে জাতকেশ্বর নামে এক গ্রাম দান করিয়াছিলেন। নিৰ্ম্মল-মাছাত্ম্যে এখানকার বহু ক্ষুদ্রতীর্থ ও কুণ্ডের উল্লেখ আছে। পর্তুগীজ অধিকার কালে সেই সমস্ত তীর্থই লুপ্ত হইয়াছিল। তৎপরে মহারাষ্ট্রগণ এই স্থান অধিকার করিয়া বিমলেশ্বর-মন্দিরসংস্কার ও লিঙ্গের স্থানে দত্তাত্রেয়ের পাছক প্রতিষ্ঠিত করেন। এই সময় কতকগুলি তীর্থের পুন: রূদ্ধার সাধিত হয়। অধিবাসী সাধারণের প্রদত্ত মূলধনে শুরু শঙ্করাচাৰ্য স্বামীর তত্ত্বাবধানে'বেসেবার বায় নিৰ্ব্বাহ হয়। শঙ্করস্বামী মাসে মাসে এখানে আসিয়া থাকেন । এই মন্দিরের পাশ্বেই এখানকার প্রথম শঙ্করাচার্য্য স্বামীর সমাধি ও ব্রাহ্মণদিগের জন্ত অন্নসত্র আছে। কাৰ্ত্তিক মাসের কৃষ্ণৈকাদশতে এখানে একটি যাত্রা বা মেলা হয় । তাহাতে বহুদূরদেশ হইতে যাত্রীসমাগম হইয়া থাকে। ইতিহাস । এখানকার প্রাচীনতর ইতিহাস অস্পষ্ট। আলেক্সান্দারের সময়কার আরিয়ান প্রভৃতি গ্রীক-ঐতিহাসিকগণ পশ্চিম ভারতের যে সংক্ষিপ্ত পরিচয় দিয়া গিয়াছেন,তাহা পড়িলে মনে হয় যে সেই সময় এই দ্বীপ স্বরাষ্ট্র বা লাটের অন্তভুক্ত ছিল । আরিয়া লিথিয়াছেন যে গ্রীকগণ র্তাহার সময়ের বহুপূৰ্ব্ব হইতেই কল্যাশে বাণিজ্য করতে যাইতেন । এমন কি কোন কোন ঐতিহাসিকগণ এমনও লিপিয়াছেন যে গ্রীকগণ শালসেটিীপে উপনিবেশ করিবার চেষ্টা করিয়াছিল, তাহার উদ্দেপ্ত, দাক্ষিণাত্য অধিকারে তাহাদের সুবিধা হইবে। রোমকের ইজিপ্ট অধিকার করিলে ভারতীয় বাণিজ্য তাহার একচেটিয়া কবিয়া লইয়াছিল,এই সময়ে আরবসমুদ্রে বিদেশীয়খণের আর প্রবেশাধিকাৰ রছিল না। গ্রীক ঐতিহাসিক লিথিয়াছেন যে তৎকালে সারগনস (৪araganus)=সারঙ্গ নামে এক রাজ কল্যাণ, বসই ও মুম্বই প্রভৃতিস্থানের অধিপতি ছিলেন,গ্ৰীকদিগের সহিত তাহার মিঞতা fes, fax niwtan (Sandanes)= b*** তাহার রাজ্য অধিকার করিয়া বিদেশীয়দিগের প্রতি বাণিজ্যনিষেধাজ্ঞা ঘোষণা করেন, এমন কি কএকজন বিদেশীকে কড়া পাহztą statt5 ( Barace ) পাঠাইয়া দেন । এইরূপে গ্রীকগণ নিবারিত হইলেও রোমকের তারতে বাণিজ্য সংস্রব ত্যাগ করে নাই। জষ্টিনিয়াসের রাজত্বকালেও কল্যাণের বাণিজ্যপ্রতাব ৰিশ্বপ্রসিদ্ধ ছিল । মিসরের প্রসিদ্ধ ৰশিক্ wrw" (Kosmos Indikopleustes että 48° খুটাৰে কল্যাপে আগমন করেন, তিনি এখানে বহু সংখ্যক পৃষ্ঠান দেখিবা চমৎকৃত হইয়াছিলেন, গুঞ্জ মণী থৈগুরুপ যুক্ত পশ্চিমলিজুন । बशाः शानन प्राप्नन म गरछ९ पत्रवारुनी ॥” XVII » ፃፀ [ ৬৯৩ } o बनईदोश्र ঐ সকল খৃষ্টান পারস্তের লেক্টেৰিয়া বিশপের ধৰ্ম্মশাসনাধীন ছিল। তৎপরে খৃষ্টীয় ৭ম শতাঙ্গে চীন-পরিব্রাজক નિત્તિ আসিয়া এখানকার বাণিজ্যসম্বুদ্ধি উজ্জল ভাষায় বর্ণনা করিয়া शॆिब्रांश्ञ । _ tdहे शैौरभद्र श्रद्धर्श्वङ ॐौशन व #ानां बश्शूर्तरूण श्रेड ब्राजशानौ पनिग्न अंश झ्णि। भृीब्र २भ भज्राझैौग्न.6अश्ऊए% এখানে শিলাহার-রাজবংশের অভু্যায়। তাছাদের সময় ঐশ্বান লক্ষ্মী সরস্বতীর গ্রিন্থান, এখানেই অশেষ-শাস্ত্ৰবিং জীমূতবাহন ब्रॉछङ्ग कग्निष्ठम । খৃষ্টীয় ১৩শ শতাঙ্গ পৰ্য্যন্ত বয়লাট শিলাছার বংশের অধিকারে ছিল, তৎপরে বাদবরাজবংশের অধিকারভুক্ত হইয়াছিল । বসষ্ট হইতে ১১৯৪ ও ১২১২ খৃষ্টাৰো উৎকীর্ণ যাদবরাজবংশের শাসন পত্র পাওয়া গিয়াছে। যাদবের মুসলমানের অধীনতা স্বীকার করিলে কোঙ্কণের এই অংশ খণ্ডে খণ্ডে বিভক্ত হইয়া মহিমের ভীমরাঞ্জ, দেবগিরির রামদেব, এতদ্ভিন্ন লারক, বঙ্গোলি ও ভাণ্ডারী উপাধিধারী সামন্তগণের শাসনাধীন হুইয়াছিল। ১২৯৪ খৃষ্টান্ধে দিল্লীশ্বর আলাউদ্দীনের নিকট রামদেব পরাঞ্জিত হইলে আল্পদিন মধ্যেই দক্ষিণাত্য মুসলমান করকবলিত হইয়াছিল বটে। কিন্তু তখনও বসইদ্বীপপতি স্বাধীনতা রক্ষীয় সমর্থ হইয়াছিলেন । ভিনিসের প্রসিদ্ধ পৰ্য্যটক মার্কো পোলো ১২৯৫ খৃষ্টাম্বে স্থানে ( ঠানায় ) আগমন করেন, তিনি এখানকার সমৃদ্ধিদৰ্শনে চমৎকৃত হইয়াছিলেন। তিনি লিখিয়াছেন যে, এই স্থান প্রতীচ্যের একট সুবিস্তৃত জনপদের রাজধানী, . এথানকার মরপতি কাহারও অধীন নহেন। এখানকার অধিবালীয় পৌত্তলিক, তাহার দেশীভাষায় কথা কয়। তাহার সময়ে এখানে উৎকৃষ্ট চৰ্ম্মেয় ও কার্পাসের নানা সাজ সজ্জ, মসলিন এবং সোপা রূপার ব্যবসা চলিত। ঐস্থানে নদী হইভে अणप्रशश्र१ वांश्मि इहेब्रा ग९हे अस्रांफ्रॉब्र कब्रिफ । ১৩৯১ খৃষ্ঠানাে মুসলমান বিজেতৃগণের খরদৃষ্ট এই অঞ্চলে নিপতিত হইল। ছাহাজের উপদ্রবে ও অত্যাচারে দীর্ঘকাল এখানকার অধিবাসিগণ নিগ্ৰহ ভোগ করিয়াছিল। সেই সময় কেবল স্থানীয় লোক বলিয়া নহে,কত নিরীহ বিদেশী ধৰ্ম্মপ্রচারক औदन छे९ण# कब्रिड वांदा हऐब्रश्लि ।। ४००० धृहेtएक rिöणिfrați marțin stafra ( Friar Odaric of Priuli ) ş4ai कब्रिज श्रिब्रारझन ८ष २७२० धूठेोंrश अन्निकांन् भू*ीग्न गष्टनाङ्गक्रूद्धः अझर्मन् (Jordanus) अष्म “क्छन সন্ন্যাসী তাছার সী চাৰ্বিজন ঘড়িকে সমাধিস্থ করিবার পর মুসলমান-হুস্তে জীবন উৎসর্গ ক্ষরিয়াছিলেন। ওম্বেরিক আদেশে প্রত্যাগমনকালে জাহাজে করিয়া সেই সকল ষ্টান সাধুক্ষণের অস্থি লইয়া গিয়া