পাতা:বিশ্বকোষ সপ্তদশ খণ্ড.djvu/৮১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


* [ ११ ] রোমসাম্রাজ্য - . _कान्-ब्र्काश्-च ज्ञङ्_ङ्ग्_ সময়ে ১২৯৫-১৩২৩ খৃষ্টাৰ পৰ্য্যন্ত ইহার সহযোগিরূপে রাজ্যশাসন করেন। ৭৬ জাপ্রোনিকাস (৩র ) ১৩,৮ ও পরে ১৩৩২ খৃষ্টাব্দে দুইবার রাজপদ পান। শেষোক্ত বর্ষ হইতে ১৩৪১ খৃঃ পৰ্য্যস্ত ইনি রাজত্ব করিয়াছিলেন। ইনি তুর্কজাতির সহিত যুদ্ধে পরাঙ্ক ও আহত হন। এই সময় হইতে তুর্কসাম্রাজ্যের প্রভাব বিস্তার ও প্রতিষ্ঠা হয়। ১৩৪১ খৃষ্টাব্দে তাহার মৃত্যুর পর তদীয় দ্বিতীয়া পত্নী আনের গর্ভজাত সস্তান জন পেলিওলোগাস্ রাজসিংহাসনের উত্তরাধিকারী হইয়াছিলেন। ৭৭ জন ( ১ম ) ১৩৪১—১৩৯১, রাজ্যাধিকার কালে তিনি নবমবৰ্ষীয় বালক ছিলেন । এই জন্ত রাজমাতা আন রাজ্যপরিচালনার্থ স্বীয় স্বামীর পরমহিতৈষী বন্ধু জন কাণ্টাকুজেনকে রাজপরিদর্শক ( Regent ) নিযুক্ত করেন। উক্ত বর্ষে তাহার প্রভাবদর্শনে ঈর্ষান্বিত হইয়। শত্রপক্ষ তাহাকে রাজদ্রোহী ও ধৰ্ম্মদ্বেধী বলিয়া ঘোষণা করে এবং তাহারা তাহার মাতাকে কারারুদ্ধ করিলে তিনি ডেমোটিক নগরে স্বীয় মস্তকোপরি রাজচ্ছত্র ধারণ করিলেন ; কিন্তু তাহার সেনাদল অচিরে তাহাকে পরিত্যাগ করায় তিনি অসভ্য সাববীয় জাতির নিকট আশ্রয় গ্রহণ করেন । এদিকে নৌসেনাপতি আপোকোকা ও ধৰ্ম্মাধ্যক্ষ GR ( John of Apri, the Patriarch ) রাজ্যের দণ্ডমুণ্ডের কর্তা হইলেন । রাজ্যে অত্যাচার ও অনাচার-স্রোত প্রবাহিত হইল। নৌসেনাপতি নিহত হইলেন। রাজ্যময় ঘোর বিশৃঙ্খলা উপস্থিত দেখিয়া রাণী আন কাণ্টাকুজেনের নিৰ্ব্বাসন-দণ্ডাজ্ঞা রদ করিবার জন্ত ধৰ্ম্মাধ্যক্ষ জনের | নিকট প্রার্থনা করিলেন, পক্ষাত্তরে জন তাহাকে রাজ্য ও ধৰ্ম্মচুতির ভয় দেখাইলেন। এই গোলযোগের অবসরে কাটাকুজেন সদলবলে উপস্থিত হইয়া কনস্তাস্তিনোপল অবরোধ করিলেন । রাষ্ট্ৰী আন সংবাদ পাইয় তাহার পদানত হইলেন। আক্রমণকারী স্বীয় কস্তার সহিত রাজকুমার জনের বিবাহ দিলেন এবং স্বয়ং তাহাদের অভিভাবক হইলেন ( ১৩৪৭ খৃষ্টাৰো )। & এইরূপে ছয় বৎসর অত্যাচারের পর কান্টাকুজেনের শাসনে রাজ্যমধ্যে শাস্তিস্থাপিত হইল। কিন্তু আশ্রোনিকালের বংশধর আর রাজা রহিল মা ; XVII - - কৌশলে কাটাকুজেনই রাজ্যেশ্বর হইলেন। তখন জন স্বীয় অধিকারপ্রাপ্তির আশায় বিদ্রোহাচরণে প্রবৃত্ত হইলেন, কান্টাকুজেনের অনুগ্রহীত যুরোপবাসী তুর্ক সেনাদল তাহাকে পরাজিত করিল। তখন কান্টাকুজেন বালক-রাজের সহিত পুনর্মিলনের আশা অল্প জানিয়া স্বীয় পুত্র মাথিউ কান্টাকুজেনের সহযোগে রাজ্যশাসন করিতে বাসনা করিলেন । ১৩৫৫ খুঃ তিনি রাজকাৰ্য্য হইতে অবসর গ্রহণ করিয়া স্বীয় পুত্রের হন্তে শাসনভার অর্পণ করেন ; কিন্তু মাথিউ কাণ্টাকুজেন ১৩৫৬ খৃষ্টাৰে সিংহাসন ত্যাগ করিতে বাধ্য হন । ৭৮ মামুএল ১৩৯১-১৪২৫ । ৭৯ জন ( হয় ) মায়ুএলের সহিত ১৩৯৯ খৃষ্টাব্দে শাসনভার গ্রহণ ও ১৪৯২ খৃষ্টাব্দে রাজ্যত্যাগ করেন । ৮১ জন (৩য়) ১৪২৫—১৪৪৮ । ৮২ কনস্তাস্তাইন, ১৪৪৮ খৃষ্টাব্দে সাম্রাজ্যসিংহাসনে আরোহণ করেন এবং ১৪৪৩ খৃষ্টাব্দের ২৯মে তুর্কসেন কর্তৃক কনস্তাস্তিনোপল অবরোধ ও জয়কালে নিহত হন । রোমসাম্রাজ্যের অধঃপতন । সম্যক্ সমুন্নত রোমকজাতির উত্তমে এতকাল ধরিয়া ধীরে ধীরে যে বিস্তীর্ণ রোমসাম্রাজ্য পরিপুষ্ট হইয়া সমগ্র সভ্যজগতকে আলোকিত করিয়াছিল, যাহার সুবিমল সভ্যতা ও বীরত্বপ্রতিভায় অসভ্য বৰ্ব্বরগণ এবং সমৃদ্ধিসম্পন্ন আসিরীয়, পারস্ত প্রভৃতি জনপদবাসিগণ রক্তস্রোতে ধরা রঞ্জিত করিয়াও পরাভূত হইয়াছিল, সেই সুমহান রাজতন্ত্রের কিরূপে বিলয়সাধন ঘটিল, রোমের রাজচরিত্র ও ইতিবৃত্ত আলোচনা করিলে তাহার একটা পূর্ণ-চিত্র প্রকাশিত হইতে পারে। অমাহুষিক অত্যাচার ও অসীম বীরত্বে রোমীয় নেতৃবর্গ রাজপদাভিষিক্ত হইয় প্রজাসাধারণের প্রাণে যে ভয় সমুৎপাদিত করিয়াছিলেন, তাহাই রোমসাম্রাজ্যের ভিত্তি সুদৃঢ় করিয়াছিল। সিপিও সাল্লা ও সিজারের অদ্ভুত বীরত্ব ও রণজয়কালীন নৃশংস মরহত্যা তাৎকালিক সুসভ্য ও অর্ধ-সভ্য জাতিসমূহের উপর আধিপত্য বিস্তারে সমর্থ হইয়াছিল। তদুপরি রোমের রাজনৈতিক প্রভাব-পূৰ্ব্বতন সেনেট, এগেনি, কমিলিয়া ও মাজিষ্ট্রেসি প্রভৃতি রাজকীয় বিধিবলে—অধিকৃত রাজ্যমধ্যে মুশীলন প্রতিষ্ঠা করিলেও তক্তবিভাগের শাসনকর্তৃগণ প্রজার সর্বস্বলুন্ঠনে বিরত থাকিতেন না । তাহারা রোমের অক্ষুণ্ণ প্রতাপ প্রজাবৰ্গকে ' বিশেষরূপে জানাইয়াছিলেন। তাৎকালীন সমগ্র সভ্যজগৎ রোমকজাতির ভয়ে সৰ্ব্বদাই কম্পিত ও বিচলিত হইয়াছিল।