পাতা:বিশ্বকোষ সপ্তম খণ্ড.djvu/৬২৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


তাড়িত दखड: ठांश म८श् । षांकाछै। ७क्वांब uनेिकु श्रेष्ठ ७नि कू, আবার ওদিক হইতে এদিক্ এইরূপে পুনঃ পুনঃ গতায়াত করে । প্রবাহ যায়, আবার ফিরিয়া মাসে। একটা স্ফলিঙ্গ ক্ষণিক ব্যাপার ; উহার স্থিতিকাল সেকেণ্ডের লক্ষাধিক डां★ां गॉर्म । क्खुि cजझे क्रमेिं८कब्र भ८५j श्रांदांद्र *ङ लक्र ধাক্কা এদিকে ওদিকে পড়িয়া যায়। বহুসংখ্য বার তাড়িত প্রবাহের ইতস্ততঃ স্পন্দন বা আন্দোলনের সমষ্টিফল একটা "লিঙ্গ। একটা লিঙ্গের দর্পণগত প্রতিবিম্ব দর্পণের লেগে ঘুর্ণন দ্বারা বিক্ষরিত করিলে প্রতিবিম্বট কাটা কাটা বোধ হয় । স্ফ লিঙ্গ মধ্যে তাড়িতের আন্দোলনই এইরূপ দেখাইবার কারণ । তাড়িতের ঢেউ —পরিচালকের বিভিন্ন অংশে তাড়িতের উদ্ধৃতি বিভিন্ন থাকিতে পারে না। পরিচালকের ই হাই স্বধৰ্ম্ম । এই স্বধৰ্ম্মের বশে পরিচালকে তাড়িত প্রবাহ জন্মে। প্রবাহফলে পরিচালক গরম হয় ও তৎপার্শ্ববৰ্ত্তী সমগ্র দেশটা চৌম্বক ধৰ্ম্মাক্রাস্ত হয় । প্রবাহ কেবল পরিচালকের ভিতরেই যায় এমন নহে। তবে অপরিচালকের ভিতর প্রবাহ সহজে যায় না ; যখন যায় তখন একটা উগ্র প্রচগু ধাক্কা দিয়া অপরিচালকে ছিfড়য়া যায়। ধাক্কাটা ও আবার এক মুখে হয় না। একটা ধাক্কা পড়িলেই সাধারণতঃ কিয়ৎক্ষণ তাহার ইতস্ততঃ আন্দোলন চলে। এই আন্দোলন থাকিলে শ লিঙ্গের অন্তৰ্দ্ধান হয় ও সৰ্ব্বত্র উদ্ধৃতি সমান হয়। পরিচালক ও অপরিচালকে এই প্রভেদ । আবার প্রবাহ পরিচালকের ভিতর দিয়া যায়, সকল সময়ে ইহা বলা চলে না । পরিচালক গ্লবাহের রাস্তাটা দেখাইয়া দেয় মাত্র । তড়িতস্রোন্ত উহার গা বাছিয়া চলে। শরীরের ভিতর প্রবেশের চেষ্টা করে এবং প্রবেশের পর তাপে পরিণত হয় । প্রবাহ যে রাস্তায় চলে, তাহার চারিপাশে চৌম্বক প্রদেশ । চতুর্দিক একবারে বায়ুশূন্ত হইলেও উহার চুম্বকত্ব যায় না। অনুমান হয়, শূন্ত স্থানেও এমন পদার্থ বিদ্যমান, যাহাতে ঐ छूशकर द€भान थt८क । बखउ: आयब्रा ८ष शनररू भूछ বলিয়া থাকি তাহ একবারে শূন্ত নহে। আলোকবিজ্ঞানে বলে যে শূন্তস্থান ও পদার্থ বিশেষে একবারে ওতপ্রোত ভাবে পরিব্যাপ্ত। ঐ পদার্থকে ইংরাজীতে ঈশ্বর বলে ; বাঙ্গালার আকাশ বলিব। এই আকাশ অর্ষে শূন্ত নহৈ ; উহ! শূন্তব্যাপী পদার্থ বিশেষ। এই ঈশ্বর বা আকাশ হুঙ্ক | অমৃগু ও অনুভবের অতীত হইলেও অত্যন্ত,কঠিন স্থিতিস্থাপক পদার্থ, বায়ুকণা ও লোষ্ট্রখণ্ড হইতে গ্ৰহ নক্ষয় পৰ্য্যস্ত ইছার ভিতর দিয়া অবাধে চলিয়া যায়, অথচ অশ্চির্য্য যে [ ४२.8 ] প্তাঞ্চিত कां*िछविष८ब्र हेत्रांठ७ हेइब्र निकल्ले श्रृंग्रांछिङ । uहे श्रांकां** লুড় পদার্থের অণু সকলের हैङखङ:कन्*न ७ श्रॉट्नांणनজাত ধাক্কার প্লেট বহন করে । চেউxগুলি সেকণ্ডে এক লক্ষ ছিয়াশী হাজার মাইল বেগে আকাশের ভিতর দিয়া চলে । সম্ভবতঃ তাড়িত প্রবাহ চতুঃপার্শ্বস্থ আকাশেই এই চৌম্বক ধৰ্ম্ম দেয়। মাইকেল ফারাদে চুম্বকের সহিত আলোকের কতিপয় সম্বন্ধ আবিষ্কার করেন । আলোক আকাশের ম্পন্দনমাত্র । এই স্পন্দনের একটা নির্দিষ্ট দিক্‌ আছে। চৌম্বক প্রদেশে এই স্পন্দনের দিক্‌কে ঘুরাইয়। দিতে পারে । চৌম্বক ধৰ্ম্ম যে আকাশেরই ধৰ্ম্ম ইহা হইতে ও মন্তান্ত কার ণে ও অনুমিত হয় । cप्नोन्नक १# युनि श्रांक८°द्रई १# इग्न, ङांश श्हेtश cरु স্থলে ভাড়িতপ্রবাহ এক টানে না বহিয়া ঘন ঘন আন্দোলিত হইতেছে, সেখানে এই আকাশে ও একটা আন্দোলন উপস্থিত হইবে । জড় পদার্থের অণুর কম্পনে ঢেউ জন্মিয়া যেমন চারিদিকে আকাশে ব্যাপ্ত হয় ও মালোকের উৎপাদন করে, তাড়িতের আন্দোলনেও এইরূপ ঢেউ জন্মিয় চারিদিকে আকাশে প্রসারিত হইবে । এই সকল ঢেউকে তাড়িভোৰ্ম্মি বা চৌম্বকোৰ্ম্মি বলিতে পারা যায়। বস্তুত: কোনস্থানে তাড়িতের একটা ঢেউ উৎপন্ন হইলে তার সঙ্গে চুম্বকত্বের ৪ ঢেউ জন্মিবে, উভয়ে সহবর্তী ও সহচারী ; কেনন যেগানে তাড়িতের প্রবাহ, উছার পাশে ই চুম্বকত্বের আবির্ভাব ঘটে । তাড়িতের প্রবাহের তুলনা স্রোতের সহিত, চুম্বকের তুলনা আবৰ্ত্ত বা ঘূর্ণর সহিত এবং এই প্রবাহের সহিত ঘূর্ণর অবিচ্ছেদ্য সম্বন্ধ দেখা যায় । যে আকাশে আলোক বহে, সেই অীকাশেই তাড়িতের চেউ কেন বহন না করিবে, মনস্বী ক্লার্ক মক্ষবেলের মনে এই ७धंदृश्नब्र ऊँलग्न श्छ । यनेि छेशद्दे श्ब्र श्रर्थी ९ युनि ७ कहे स्रांकां*ां উভয় ঢেউ বহন করে, ভtহা হইলে আলোকের ঢেউ ও তাড়িতের ঢেউ উভয়ই একই বেগে আকাশপথে ধাবিত श्हेबांब्रहे नञ्चांदना । दिदि१ बूङिदांब्री भक्रtदण निछ भङ সমর্থন করিয়াছিলেন। - তাড়িতের স্ফলিঙ্গ যে কম্পন বা আন্দোলনমাত্র উহ কয়েক বৎসর হইল স্থির হুইয়াছে। কিন্তু এই আন্দোলনের ফলে ষে চতুঃপার্শ্বে আকাশে তাড়িতের ঢেউ জন্মিতে পারে, মক্ষবেল তাহ অনুমানমাত্র করিয়াছিলেন । সেই সকল উৰ্ম্মির অস্তিত্ব প্রত্যক্ষ করিতে পারেন নাই। জর্মণ পণ্ডিত ছাৰ্টজ ( Hertz ) ১৮৮৭ সালের শেষভাগে আকাশলtহী তাড়িত্তোৰ্ম্মির অস্তিত্ব সকলকে. প্রত্যক্ষ করান । তদবধি