পাতা:বিশ্বকোষ সপ্তম খণ্ড.djvu/৬৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


জাহাঙ্গীর বাদশাহ হরিদাস রায়কে বিক্রমজিৎ উপাধি প্রদান করিয়া গোলন্দাজ লৈষ্ঠের অধ্যক্ষ এবং রাজা মানসিংহের পুত্ৰ ভাওসিংহকে একজন মনসবদার করিলেন। পরে গাফুরবেগের পুত্র জমানাবেগ মহাৰৎখ উপাধি লাভ করিয়া একজন মনসবদার হইলেন। রাজা নরসিংহ দেব নামে জনৈক বুনী রাজপুত বিখ্যাত সেখ আবুলফজলের প্রাণবিনাশ করিয়াছিলেন বলিয়া জাহাঙ্গীর তাহাকেও উচ্চপদ প্রদান করেন । [ আবুলফজল দেখ। ] রাজা মানসিংহের ভগিনী যোধাবাইএর গর্ভে সলিমের পসরু নামে এক পুত্র হয়। অকবরের শেষ দশায় ইহাকে সাম্রাজ্যে অভিষিক্ত করিবার চেষ্ট হইয়াছিল, কিন্তু সে চেষ্টা বিফল হয়। জাহাঙ্গীর সম্রাটু হইয়া খসরুকে কারারুদ্ধ করিলেন, কিন্তু ছয় মাস পরে একদিন রাত্রিকালে তিনি সম্রাটু আকবরের কবর দেখিতে যাইবেন এইরূপ অভিপ্রায় প্রকাশ করেন । জাহাঙ্গীর অনুমতি প্রদান করিলে খসরুর সহিত ৫০ জন অশ্বারোহী অনুচর যাইবার জন্ত প্রস্তুত হইল। খস্রু তাহাদের সহিত পঞ্জাব অভিমুখে প্রস্থান করিলেন। খসরু বিদ্রোহী হইয়া পলায়ন করিয়াছে, এই সংবাদ সম্রাটের কর্ণগোচর হইলে তিনি সেই রাত্রিতেই সেখ ফরিদ বোথারিকে তাহার অনুসরণ করিতে আদেশ দিলেন এবং পর দিন প্রত্যুষে স্বয়ং তাছার অনুসরণ করিলেন। খসরু পথিমধ্যে হাসেনবেগ খার সহিত মিলিত হইয় তাহাকে সেনাপতি নিযুক্ত করিলেন এবং বণিক ও পথিকদিগের সৰ্ব্বস্ব লুণ্ঠন করিয়া অর্থ সঞ্চয় করিতে লাগিলেন । জাহাঙ্গীর আগ্রা ত্যাগ করিয়া আসিবার সময় ইতিমাদউদ্দৌলার উপর সমস্ত ভার দিয়া আসিয়াছিলেন ; কিন্তু হিন্দাল নামক স্থানে আসিয়া তিনি দোস্ত মহম্মদকে আগ্ৰায় প্রতিনিধি স্বরূপ পাঠাইয়া দিলেন। এদিকে দিলাবার খা খসরুর আগমন-সংবাদ পাইয়া নিজ পুত্রকে যমুনানদী পার হইয় অগ্রসর হইতে বলিয়া পাঠাইলেন ও নিজে লাহোর অভিমুখে যাত্রা করিলেন । দিলাবারখা অতি দ্রুত লাহোরাভিমুখে অগ্রসর হইতে লাগিলেন এবং পথিমধ্যে সকলকেই খস্রুর বিদ্রোহ সংবাদ দিয়া সতর্ক করিয়া দিলেন । ২৪ জেলহজ্জ, থস্ক্রর পাঁচ জন অনুচর ধূত হইয়া সম্রাটু সম্মুখে নীত হইল । সম্রাটু দুই জনকে হস্তীর পদতলে নিক্ষেপ করিতে আদেশ দিলেন। অপর তিন জনকে কারারুদ্ধ করিয়া রাখিলেন। দিলাবার খাঁ অগ্রসর হইয়া লাহোর দুর্গে প্রবেশ করিলেন এবং যুদ্ধের জন্য প্রস্তুত হইলেন। ইহার এই দিবস পরে খসরু প্রায় ১২•• সৈন্ত সমভিব্যাহারে • VII • 尊 哆 ጏ ዓ 1.هوان ] ङांझांझैौब्र লাহোর দুর্গ সমীপে উপস্থিত হইলেন । তিনি তাছার অনুচরদিগকে নগরের একম্বারে অগ্নি প্রদান করিতে অনুমতি দিলেন এবং প্রকাশ করিলেন, নগর অধিকৃত হইলে সৈন্যগণ । সাত দিন পর্য্যন্ত এই নগর লুঠ করিতে পাইবে । মীর্জা হুসেন, দিলাবার বেগৰ্থ, হুসেনবেগ দিবান এবং নূরউদ্দীন কুলি এই কয়জন নগরক্ষার্থ সৈন্তসমাবেশ করিয়াছিলেন। এদিকে সৈয়দখা চন্দ্রভাগাতীরে শিবির সংস্থাপন করিয়াছিলেন ; খসরুর বিদ্রোহসংবাদ তাহার নিকট পৌছিলে তিনি অবিলম্বে লাহোরাভিমুখে অগ্রসর হইলেন এবং শীঘ্রই সম্রাটের সৈদ্যের সহিত মিলিত হইলেন । এ দিকে জাহাঙ্গীর আগাকুলির উদ্ধানে শিবির সংস্থাপন করিলে সংবাদ পাইলেন যে সেই রাত্রিতেই খসরু সম্রাট্রসৈন্ত আক্রমণ করিবে। যাহা হউক, সম্রাট কতকগুলি সৈন্ত সেখ ফরিদখার অধীনে লাহোরাভিমুখে প্রেরণ করিলেন । এই সৈম্ভ নগর সম্মুখে উপনীত হইলে খসরুর সহিত ভীষণ যুদ্ধ উপস্থিত হইল । খসরু পরাস্ত হইয়া পলায়ন করিলেন। সম্রাটু ফরিদকে অগ্ৰে পাঠাইয়া পন্ন দিন যখন স্বয়ং অগ্রসর হইতেছিলেন, সেই সময় পথিমধ্যে বিজয়বাৰ্ত্ত প্রাপ্ত হইলেন । গোবিন্দবাল সেতু পার হইয়া কিঞ্চিৎ অগ্রসর হইলে সম্সের নামক জনৈক তোষাখানার ভৃত্য আসিয়া সম্রাটুকে বিজয় সংবাদ প্রদান করিলে জাহাঙ্গীর তাহাকে খোসখবরখা উপাধি প্রদান করিলেন। সম্রাটু খসরুকে বশে আনিবার জন্ত পূৰ্ব্বে মীরজমালউদ্দীনকে পাঠাইয়াছিলেন ; তিনি এই সময়ে আসিয়া বলিলেন যে, খসরুর সৈন্যবল এত অধিক ও তাহার এত সাহসী যে ফরিদের অল্পসংখ্যক সৈন্ত কিছুতেই তাহাদিগকে পরাস্ত করিতে পারে নাই। বাদশাহ সম্সেরের সংবাদ প্রথমে বিশ্বাস করিলেন না ; কিন্তু পরে খস্রুর যান আনীত হইলে তিনি বিশেষ আনন্দ প্রকাশ করিলেন। এই যুদ্ধে ফরিদ বিশেষ বিক্রমের সহিত যুদ্ধ করিয়াছিল। সৈফ খাঁর শরীরে আঠার স্থান আহত হইয়াছিল। খসরু পরাজিত হইয়। কাবুলাভিমুখে পলায়ন করিলেন। সম্রাটু তাহাকে ধরিবার জন্য মহাবতর্থী এবং আলিবেগকে প্রেরণ করিলেন। খসরু বিতস্তাতীরে উপস্থিত হইলে তাহার অনুচরদিগের মধ্যে মতদ্বৈধ উপস্থিত হইল। কেহ কেহ বলিল, হিন্দুস্থানে থাকিয়া রাজ্যে গোলযোগ উৎপাদন করাই শ্রেয়, আবার কেহ কেহ বলিল, কাবুলে গমন করাই উচিত । খস্ক্ল হাসেনবেগের সহিত একমত হইয়া কাবুলে যাওয়াই স্থির করিলেন । ইহাতে হিন্দুস্থানী ও আফগানগণ তাঁহাকে পরিত্যাগ করিল।