পাতা:বিসর্জন - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৮৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


গুণবতী। যে চোর করিছে চুরি তোমারই মুকুট নক্ষত্ররায় । গুণবতী । নক্ষত্ররায় । গুণবতী মুকুট লইয়া খেলা ! বড়ো কাল-খেলা ! নক্ষত্রেরায় । গুণবতী । নক্ষত্ররায় । গুণবতী । তাহারে সরায়ে দাও। বুঝেছ কি ? সব বুঝিয়াছি, শুধু কে সে চোর বুঝি নাই । ওই-যে বালক ধ্রুব ! বাড়িছে রাজার কোলে, দিনে দিনে উচু হয়ে উঠিতেছে মুকুটের পানে । তাই বটে ! এতক্ষণে বুঝিলাম সব । মুকুট দেখেছি বটে ধ্রুবের মাথায় ! আমি বলি শুধু খেলা । এই বেলা ভেঙে দাও খেলা— নহে তুমি সে খেলার হইবে খেলেন । t তাই বটে ! এ তো ভালো খেলা নয় । অধরাত্রে আজি গোপনে লইয়া তারে দেবীর চরণে মোর নামে কোরো নিবেদন । তার রক্তে নিবে যাবে দেবরোষানল, স্থায়ী হবে সিংহাসন এই রাজবংশে– পিতৃলোক গাহিবেন কল্যাণ তোমার । বুঝেছ কি ? বুঝিয়াছি। তবে যাও ! যা বলিন্ত করে । মনে রেখো, মোর নামে কোরো নিবেদন । tյ Ե