পাতা:ব্যক্তিত্ব - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৯৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ভূমিকা থাকবে। সেখানে গাছ কেবল ক্লোরোফিল উৎপাদন ও বাতাস থেকে কার্বন গ্রহণ করে না, বরং জীবনীশক্তিসমৃদ্ধ গাছ রূপেই দেখা দেয়। (স্বভাবতই আমাদের পদতল এমনভাবে নির্মিত যে এই পৃথিবীর উপরে দাড়াবার ও হেঁটে যাবার পক্ষে তা শ্রেষ্ঠ যন্ত্র হয়েছে। যেদিন থেকে আমরা জুতো পরতে শুরু করেছি, সেদিন থেকেই আমরা আমাদের পায়ের উপযোগিতাকে খুব কমিয়ে ফেলেছি। পায়ের দায়িত্ব কমে যাবার ফলে তাদের মর্যাদা নষ্ট হয়ে গেছে । আর এখন আমাদের পা মোজা, চটি ও সবরকম দামের ও বিরূপ আকৃতির জুতোয় শোভিত হচ্ছে। আমাদের কাছে এই সজ্জা হল ঈশ্বরের বিরুদ্ধে এই অভিযোগ যে— তিনি আমাদের খুরের বদলে সুন্দর অনুভূতিশীল পদতল দিয়েছেন। আমি অবশ্য বয়স্ক মানুষেব জীবন থেকে পদাবরণকে একেবাবে বাদ দেবার পক্ষে নই। কিন্তু আমি বিনা দ্বিধায় জোর দিযে বলব যে, শিশুদের পদতলকে তাদের শিক্ষা থেকে বঞ্চিত করা উচিত নয়, কারণ সে শিক্ষা বিনামূল্যে প্রকৃতি তাদের দিয়েছে। আমাদের সকল অঙ্গের মধ্যে এই পাদাঙ্গই পৃথিবীকে স্পর্শের দ্বারা জানার পক্ষে সব চেয়ে উপযোগী। কারণ এই পৃথিবীর সত্য প্রেমিক-পদতলের চুম্বনেই উদঘাটিত হয় ) আমি আবার স্বীকার কবছি যে, আমি এক অভিজাত ঘবে লালিত হয়েছি ও শৈশব থেকে ধুলোর প্রত্যক্ষ সংযোগ থেকে আমার পা-কে সযত্নে রক্ষা করা হয়েছে। যখন আমি ছেলেদের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে খালি পায়ে হাটবার চেষ্টা করেছি, তখন আমি বেদনার সঙ্গে অনুভব করেছি যে আমার পায়ের তলার পৃথিবী সম্বন্ধে আমি কত অজ্ঞ। আমি অবধারিত কঁাটার উপর দিয়েই