পাতা:ময়ূখ - রাখালদাস বন্দ্যোপাধ্যায়.djvu/১৭১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটিকে বৈধকরণ করা হয়েছে। পাতাটিতে কোনো প্রকার ভুল পেলে তা ঠিক করুন বা জানান।
১৬৩
ত্রয়োবিংশ পরিচ্ছেদ

খাঁ য়াকুৎ নিতান্ত অপরাধীর ন্যায় দাঁড়াইয়াছিল। বাদশাহ তাহাদিগের অবস্থা দেখিয়া বেগমকে জিজ্ঞাসা করিলেন, “আলিয়া, ইহাদিগের কি হইয়াছে?”

 বেগম বাদশাহের হস্তধারণ করিয়া যমুনাতীরস্থিত একটি কক্ষে লইয়া গেলেন এবং কহিলেন, “জহান্‌পনা, আমার আমলে মহলসরায় যাহা হয় নাই তাহাই হইয়াছে।”

 “কি হইয়াছে?”

 “আপনি সুস্থ হউন, তাহার পরে বলিব।”

 “আমি বেশ সুস্থ আছি, তুমি বল।”

 “বড় ভীষণ কথা, মহলসরায় দুই জন পুরুষ ধরা পড়িয়াছে।”

 “পুরুষ? কি জাতি?” “বাঙ্গালী।” “বাঙ্গালী?”

 “হাঁ, জহান্‌পনা, একজন সুন্দর বলিষ্ঠ যুবক, আর একজন বৃদ্ধ; কিন্তু তাহার দেহে জীনের মত অসীম বল।”

 “কোথায় ধরা পড়িল?”

 “শিশ্‌মহলের নীচে ফাঁসীখানায়।”

 “কে ধরিল?” “আমি।” “তুমি?”

 “হাঁ, জহান্‌পনা, সন্ধ্যার সময়ে য়াকুৎ বাঁদী গুলজার আমাকে বলিল যে গুলরুখ্‌ রঙ্গমহলে এজন পুরুষ আনিয়াছে। আমি অন্ধকারে তাহার সন্ধান না পাইয়া গুলজারের কথা মিথ্যা মনে করিয়াছিলাম। আপনি আজ যখন দরবার