পাতা:মহাত্মা কালীপ্রসন্ন সিংহ.djvu/১১৯

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


নাট-মন্দিরে ওয়েল্স্ জজের মুখরোগের চিকিৎসা করার জন্যে সভা করা হবে । ঔষধ সাগরে রয়েচে ।

  • সহরের অনেক বড়মানুষ— তারা যে বাঙ্গালীর ছেলে, ইটি স্বীকার কত্তে লজ্জিত হন; বাবু চুনোগলির আনডু পিক্রসের পৌত্তর বল্পে তার বড় খুলী হন; স্বতরাং যাহাতে বাঙ্গালীর শ্ৰীবৃদ্ধি হয়, মান বাড়ে, সে সকল কাজ থেকে দূরে থাকেন। তদ্বিপরীত নিয়তই স্বজাতির অমঙ্গল চেষ্টা করে থাকেন। রাজা রাধাকাস্তের নাট-মন্দিরে ওয়েলসের বিপক্ষে বাঙ্গালীর সম্ভ করবেন শুনে তারা বড়ই দুঃখিত হলেন ; খান খাবার কৃতজ্ঞতা-প্রকাশের সময় মনে পড়ে গেল ; যাতে ঐ রকম সভা না হয়, কায়মনে তারই চেষ্টা কৰ্ত্তে লাগৃলেন! রাজা বাহাদুরের কাছে সুপারিস পড়লো; রাজা বাহাদুর সত্যব্রত, একবার কথা দিয়েছেন, সুতরাং উচুদলের সুপারিস হলেও সহসা রাজী হলেন না । সুপারিসওয়ালার জোয়ারের গুয়ের মত সাগরের প্রবল তরঙ্গে ভেসে চল্লো । নিরূপিত দিনে সভা হলে, সহরের লোক রৈ রৈ করে ভেঙ্গে পড়লো, নবরত্বের ভিতরের বিগ্রহ ও নাট-মন্দিরের সাম্বের যোড় হ করা পাথরের গড়রেরও আলাদের সীমা রইলো না। বাঙ্গালীদের যে কথঞ্চিৎ সাহস জন্মেছে, এই সভাতে তার কিছু প্রমাণ পাওয়া গেল। কেবল স্বপারিসওয়ালা বাবুরা ও সহরের সোণার বেণে বড়মানুষের এই সভায় আসেন নাই – মুপারিসওয়ালাদের ধোন্ত মুখ ভেঁাতা হয়ে গেল। বেণে