পাতা:মহাত্মা কালীপ্রসন্ন সিংহ.djvu/১৬৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


মহাত্মা কালীপ্রসন্ন সিংহ । را پb


ヘ م~*ب۔--»ہم

পণ্ডিত রামগতি ন্যায়রত্ন বলিয়াছেন, “বর্তমানকালে প্রাঞ্জল nasara, , ও সরল অনুবাদে কালীপ্রসন্ন সিংহের রমেশচন্দ্র দত্তের মন্তব্য। মহাভারতই আদর্শরূপে পরিগৃহীত ও সমাদৃত হইয় থাকে।” প্রসিদ্ধ ঐতিহাসিক ভরমেশচন্দ্র দত্ত ësia “Literature of Bengal” ato offif's 33 লিখিয়াছেন ঃ— সারগর্ভ উপদেশ ও ইহার মনোহর বিবিধ বিষয়ক বিবরণ পাঠ করিতে করিতে আমার মনে নূতন নূতন আনন্দের সঞ্চার হইতে লাগিল। সমস্ত দিন বিষয় কার্য্যে ৰ্যাপৃত থাকিলেও যখন একটু অবকাশ পাইতাম, তখনই পুরাণ সংগ্রহ পাঠে আমার চিত্ত ধাবিত হইত। এইরূপ অবকাশকাল সংগ্ৰহ করিয়া আমি মহাভারত আদ্যোগান্ত পাঠ করিয়াছি। এক্ষণে ইহা হইতে আমি যে অনেক উপকার ও আনন্দ লাভ করিয়ছি, তাহার জন্য আমার মন কৃতজ্ঞতা রসে পূর্ণ হইতেছে। প্রত্যুপকার নিদর্শন স্বরূপ কালীপ্রসন্ন বাবুকে কিছু দিবার জন্য আমার মন নিতান্ত অস্থির হইয়াছে, কিন্তু উাহাকে দিই এমত কিছুই আমার সস্তবে না । যাহা হউক উপকৃত ব্যক্তির হৃদয় ক্ষু কৃতজ্ঞতা মহৎ লোকদিগের অনাদরণীয় হয় না, অতএব আমি সৰ্ব্বাস্তঃকরণের সহিত তাহাই উহাকে উপহার দিতেছি। এই প্রসঙ্গে বিষয়ী লোকমাত্রেরই প্রতি আমার অনুরোধ এই যে, তাহারা প্রতিদিন বিষয় কাৰ্য্য হইতে একটু একটু সময় বঁাচাইয়া এই পরমোপাদেয় গ্রন্থখানি পাঠ করিবেন। যখন আমার দ্যায় ব্যক্তি পাঠের জন্য অবকাশ করিয়া তাহাতে অনুরাগী হইয়াছে, এবং তাহা হইতে রাশি রাশি জ্ঞানরন্তু উদ্ধার করিতে সক্ষম হইয়াছে, তখন আমা অপেক্ষ গুণবান ব্যক্তিগণ যে ইহা হইতে অধিকতর ফল লাভ করিতে পারিবেন, তাহাতে সন্দেহ মাত্র নাই । - শ্রীঅভয়চরণ মিত্র । ১৭ই বৈশাখ, ১২৭৪ সাল। বাহির সিমলা ।