পাতা:মহাত্মা রাজা রামমোহন রায়ের জীবনচরিত.djvu/১০৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


৯৮ মহাত্মা রাজা রামমোহন রায়ের জীবনচরিত। কমললোচন বসুর * একটা বাড়া ভাড়া লইয়া ১৭৫০ শকে, ১৮২৮ খৃষ্টাব্দে উপাসনা সভা সংস্থাপিত হইল। প্রতি শনিবার সন্ধ্য সাতটা হইতে নয়ট পৰ্য্যন্ত সভার কাৰ্য্য হইত। দুইজন তেলুগু ব্রাহ্মণ বেদ, এবং উৎসবানন্দ বিদ্যাবাগীশ উপনিষদ পাঠ করিতেন। পরে রামচন্দ্র বিদ্যাবাগীশ মহাশয় বৈদিক শ্লোকের ব্যাখ্যা করিলে সংগীত হইয় সভাভঙ্গ হইত ; তারাচাদ চক্রবর্তী সম্পাদক নিযুক্ত হইয়ছিলুেন। কলিকাতাস্থ হিন্দুগণ অনেকে সভায় উপস্থিত হইতেন । . বর্তমান সমাজমন্দির প্রতিষ্ঠা । এই সভা সংস্থাপনের অল্প দিন পরেই, যথেষ্ট অর্থ সংগৃহীত হইলে, চিৎপুর রোডের পার্থে এক খণ্ড ভূমি ক্রয় করিয়া তাহার উপর বর্তমান সমাজ গৃহ নিৰ্ম্মিত হইল। ১৭৫১ শকের ১১ মাঘ হইতে সেখানে সমাজের কার্য্য আরম্ভ হইল। এক্ষণে উক্ত দিবসই সমাজের সাম্বৎসরিক উৎসব হইয়া থাকে। প্রথমে কিছু দিন ভাদ্র মাসে সাম্বৎসরিক উৎসব হইত ; এবং তদুপ লক্ষে বাবু দ্বারকানাথ ঠাকুর, বাবু কালীনাথ মুন্‌সি, ও বা মথুরানাথ মল্লিক, ব্রাহ্মণ পণ্ডিতদিগকে নিমন্ত্ৰণ করিয়া আনিয় বহু অর্থ প্রদানপূর্বক বিদায় করিতেন।

  • পর্তুগিজ বপিকদিগের অধীনে কৰ্ম্ম করিতেন বলিয়া লোকে কমললোচ বস্তুকে ফিরিঙ্গি কমল বসু বলিত। এক্ষণে হরনাথ মল্লিক উক্ত বাটী সত্ত্বাধকারী।