পাতা:মহাত্মা রাজা রামমোহন রায়ের জীবনচরিত.djvu/২৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


দ্বিতীয় অধ্যায়। গৃহ প্রত্যাগমন, শাস্ত্রচর্চা, পুনৰ্ব্বৰ্জন ও বিষয়কৰ্ম্ম। ج=تعجچچصجم: গৃহপ্রত্যাগমন । রামমোহন রায় ভারতবর্ষে প্রত্যাবৰ্ত্তন করিলেন। এদিকে র্তাহার পিতার্তাহাকে গৃহে লইয়া আসিবার জন্ত উত্তর পশ্চিমাঞ্চলে লোক প্রেরণ করিলেন । প্রেরিত লোকের সঙ্গে, বিংশতি বৎসর বয়সে, চারি বৎসরকাল বিদেশ ভ্রমণ করিয়া তিনি গৃহে প্রত্যাগমন করিলেন। রামকান্ত রায় যার পর নাই আদরের সহিত পুত্রকে গ্রহণ করিলেন। রামকান্ত রায়ু বলিয়াছিলেন যে,রামচন্দ্রকে বনে পাঠাইয় রাজা দশরথ যেরূপ ভগ্নহৃদয় উইয়াছিলেন, তিনিও তাহার রামের শোকে তদনুরূপ অবস্থা প্রাপ্ত হইয়াছেন। ইহা বলা বাহুল্য যে, সন্তানবৎসল৷ ফুলঠাকুরাণী হারানধন পুনঃপ্রাপ্ত হইয়া আনন্দসাগরে নিমগ্ন হইলেন। বিবাহ। রামমোহন রায়ের তিন বিবাহ। অল্প বয়সেই তাহার প্রথম স্ত্রীর মৃত্যু হয়। তৎপরে তাহার পিতা ক্রমে এক স্ত্রীর জীবদ্দশায় আর একটা বিবাহ দেন। বৰ্দ্ধমান জিলার অন্তর্গত, কুড়মন পলাশি গ্রামে তাহার একটী বিবাহ হইয়াছিল। মহাত্মাদিগের জীবনও যে সাময়িক কুসংস্কার ও কুপ্রথার হস্ত হইতে