পাতা:মহাত্মা রাজা রামমোহন রায়ের জীবনচরিত.djvu/২৮৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রাজা রামমোহন রায়ের ধৰ্ম্মবিষয়ক মত। ২৮১ করিয়াছিলেন যে, তাহার মৃত্যুর পরে খ্ৰীষ্টধর্ণানুযায়ী উাহার অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া না হয় । পাঠকবর্গ পূর্কেই অবগত হইয়াছেন যে, তাহার ইংলতীয় বন্ধুগণ অতি সাবধানে সে অনুরোধ রক্ষা করিয়াছিলেন। কেবল ইহাই নছে, তাহার মৃত্যুর পর তাছার মৃত শরীরে ব্রাহ্মণের চিহ্নস্বরূপ যজ্ঞোপবীত দৃষ্ট হইয়াছিল। আমরা জিজ্ঞাসা করি, ষে ব্যক্তি বাইবেলকে ঈশ্বরনির্দিষ্ট এক মাত্র অভ্রান্ত শাস্ত্র বলিয়া বিশ্বাস করে, তাহার পক্ষে এ প্রকার ব্যবহার কি কখন সম্ভবপর হইতে পারে ? বিশেষতঃ রাজ রামমোহন রায়ের ন্যায় একজন উন্নতমনা সত্যপ্রিয় দৃঢ়চিত্ত লোকের পক্ষে এ প্রকার অসঙ্গত ব্যবহার কখনই সম্ভবপর বলিয়া মনে করিতে পারি না । * চতুর্থত: রাজ রামমোহন রায় যে, সৰ্ব্বশাস্ত্রের সারগ্রাহী একেশ্বরবাদী ছিলেন, তাহ প্রতিপন্ন করা কঠিন বিষয় নহে। তাহার প্রতিষ্ঠিত আদি ব্রাহ্মসমাজের উক্টড়ড়, পত্র একটা অখণ্ডনীয় প্রমাণ। তাহা যাহারা দেখিয়াছেন, তাহার সকলেই অবগত হইয়াছেন যে, রামমোহন রায় ব্রাহ্মসমাজে কোন প্রকার সাম্প্রদায়িকভাবকে স্থান দান করেন নাই । যে সকল বিষয়ে বিভিন্ন ধৰ্ম্মসম্প্রদায়ের মধ্যে বিরোধ আছে, যে সকল মত দেশ কালে বন্ধ, এপ্রকার কিছুই উক্ত ট্রষ্টীস্থ পত্রে স্থান প্রাপ্ত হয় নাই। যে প্রকার উপাসনা ও উপলশে কোন সম্প্রদায়ভুক্ত লোকের আপত্তি করিবার কিছুই থাকে মজ্জা, ব্ৰাক্ষममांटलद्र बछ ङिनि ठांश हे निर्किडे कब्रिब्रां क्ग्रिां त्रिंब्रांtझ्न । छेड़ পত্রে স্পষ্ট নির্দেশ করিয়াছেন যে, ব্রাহ্মসমাজ গৃহে পরমেশ্বরকে