পাতা:মহাত্মা রাজা রামমোহন রায়ের জীবনচরিত.djvu/৮৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


কলিকাতা বাস । אגף তাহা নহে। তখন সমাজে কেবল উপনিষৎ ব্যাখ্য, পাঠ ও সংগীত হইত | উপরি উক্ত গ্রন্থ সকল ব্যতীত রামমোহন রায় আরও কয়েক খানি গ্রন্থ প্রকাশ করিয়াছিলেন। তন্মধ্যে কয়েকখানি অনুবাদিত প্রাচীন শাস্ত্র এবং কয়েকখানি স্বরচিত গ্রন্থ । শ্বেতাশ্বতর ও ছান্দোগ্য প্রভৃতি উপনিষৎ ; গুরুপাছক, পৌত্তলিকতা চপেটিকাঘাত ইত্যাদি। কিন্তু দুঃখের বিষয় যে, এক্ষণে উক্ত গ্রন্থ গুলি পাওয়া যায় না। স্বরচিত অথবা অনুবাদিত গ্রন্থ ভিন্ন ব্রামমোহন রায় কোন কোন জ্ঞানগর্ভ সংস্কৃত গ্রন্থ প্রকাশ করিয়াছিলেন। র্তাহার বর্তমান গ্রন্থপ্রকাশক বলেন,—“রাজা রামমোহন রায় বেদান্তহুত্রের সমগ্র সংস্কৃত শাস্করভাষ্য’ পৃথক মুদ্রিত করিয়াছিলেন, এবং ঈশ, কেন, কঠ, মুণ্ডক, প্রভৃতি কয়েকখানি উপনিষৎ ও তাহার সংস্কৃত বৃত্তি বা টীকা মুদ্রিত করিয়া প্রচার করিয়াছিলেন । ইহার মধ্যে কোন কোন গ্রন্থ ভিন্ন ভিন্ন আকারে মুদ্রিত হইয়াছিল। বেদান্ত স্বত্র ভাষ্যথানি চতুস্পত্রাকারের (Quarto size) ৩৭৭ পৃষ্ঠায় সম্পূর্ণ। কিন্তু তাহাতে রামমোহন রায়ের রচিত কিছু নাই। উপনিষদের বৃত্তি গুলি ভিন্ন লোকের রচিত” ইত্যাদি। বেদচর্চার পুনরুদ্দীপন । ব্ৰহ্মজ্ঞান সম্বন্ধে শাস্ত্রীয় বিচারে প্রবৃত্ত হওয়াতে রামমোহন রায়ের দ্বারা একটি বিশেষ উপকার সাধিত হইয়াছিল। বঙ্গ দেশে বহুকাল হইতে বেদ বেদান্তের চর্চা বিলুপ্ত হইয়া যায়।