পাতা:মানিক গ্রন্থাবলী (প্রথম খণ্ড).pdf/১৭৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শু্যামল। ফের যদি তুমি আমার সঙ্গে এমনি কর কোনদিন তোমার সঙ্গে কথা কইব না। তারপর শ্যামল চলিয়া গেলে এমন শ্ৰান্ত, উদভ্ৰান্ত আর অসহায় মনে হইয়াছিল নিজেকে, আধা ঘণ্টা মালতী চোখ বুজিয়া বিছানায় পড়িয়াছিল। এখন আবার রাজকুমারের সঙ্গে বুঝাপড়া বাকী আছে। শেষ বুঝাপড়ার কি আছে, কিছুই সে জানে না। কিন্তু আর তার সহ্য হয় না। এই অনির্দিষ্ট অসহ-হওয়ার প্রতিকার চাই। এ ভাবে আর চলে না, চলিতে পারে না। হয় রাজকুমার তাকে লইয়া যাক সমুদ্রতীরের কোন বন্দরে, পাহাড়ের মাথায় কোন সহরে, মাঠের ধারের কোন গ্রামে, সেখানে সন্ধ্যা হইতে তাকে বুকে তুলিয়া এত জোরে পিষিতে থাক যেন শেষ রাত্রে তার দম আটকাইয়া যায়, নয়তো তাকেই অনুরোধ করুক জোরে তার গলা জড়াইয়া ধরিতে যাতে আর রাজকুমার নিঃশ্বাস নিতে না পারে। তার দুৰ্বোধ্য অর্থহীন যন্ত্রণার মত এইরকম थioछाज़ा उम्रानक किकू घरेक। রাজকুমার প্রতীক্ষা করিয়া আছে, সে যাচিয়া দেখা করিতে চাহিয়াছে বলিয়ন রাজকুমার তার জন্য রাস্তার ধারে এক গা বিলাতী দোকানের লাল বাড়ীর সামনে গাড়ী-বারান্দার নীচে ফুটপাতে দাড়াইয়া তার প্রতীক্ষা করিতেছে, ক্ৰমাগত এই কথাটা মনে পড়িতে পড়িতে মালতীর মস্তিষ্কে উদভ্ৰান্ত চিন্তার পাক-খাওয়া কমিয়া আসিল । জীবনে মালতী একৰার নাগরদোলায় চড়িয়াছিল, দশ এগার বছর বয়সে । তার দুৰ্দশা পৌছিয়াছিল। সেই সীমায় যার পরেই মুছে গিয়া পড়িয়া যাহতে হয়। উঠিয়া জামা কাপড় বদলানোর সময় আজ তার মনে হইতে লাগিল, এই মাত্র সে যেন নাগরদোলা হইতে নামিয়া আসিয়াছে। সে জানিত না, সম্প্রতি রাজকুমারেরও একদিন এই রকম মনে হইয়াছিল। রাজকুমার বলিল, দাড়িয়ে দাড়িয়ে মানুষ দেখছিলাম মালতী, দেখতে দেখতে একটা অন্যায় করে ফেলেছি। Gli fè ? O এদিক থেকে একজন মহিলা আসছিলেন, সামনে দিয়ে পাশ কাটিয়ে যাবেন । যখন কাছাকাছি এলেন, আমি বুঝতে পারলাম। তিনি আশা করছেন আমি একটু পিছু হটে তাকে পাশ কাটাবার আরেকটু যায়গা দেব। ভদ্রতা করে একপা পিছু হটতে গিয়ে আরেকজনের পা মাড়িয়ে দিলাম, ছোটখাট একটু ধাক্কাও লাগল। যার পা মাড়িয়ে দিলাম তিনি ঠিক মহিলা নন, কমবয়সী একটি বিদেশী মেয়ে। 히 ঘুরে দাড়িয়ে বুঝলাম অন্ততঃ গালে একটা চড় সে মারবেই। আমি অ্যাপলজি পৰ্য্যন্ত চাইলাম না। চুপ করে দাড়িয়ে তার চোখের দিকে তাকিয়ে রইলাম। কুড়ি কি বাইশ সেকেণ্ড। তারপর হঠাৎ মুখ ঘুরিয়ে সে চলতে আরম্ভ করল। কি বলে গেল জান ?-সৱি । চতু কোণ yao তারপর ? তারপর আবার কি ? cष्ठाभांद्र 65ाcथव्र निएक यूएि बांझेs cगcक७ उांकि ब्र থেকেই মেয়েটার রাগ জল হয়ে গেল কেন বুঝিয়ে বলবে না ? ওটাই তো আসল কথা,-গল্পের মরাল। আচ্ছা আমিই বলছি শোন। ভুল হলে করেক্ট করবে। তোমার চোখের দিকে তাকিয়ে সে বুঝতে পেরেছিল, মানুষ ভাল, মানুষ কখনো অন্যা করে না, সমস্ত অন্যায় আপনি ঘটে যায়ওগুলি জীবনেব অ্যাকসিডেন্ট। ঠিক হয় নি ? মালতী আজ রাজকুমারকে খোচা দিয়াছে, ব্যঙ্গ করিয়াছে। মালতীর পক্ষে এটা একেবারে অসম্ভব বলিয়া জানিত কিনা। রাজকুমার, তাই অনেকদিন পরে আজ ভাল করিয়া তার মুখের দিকে চাহিয়া দেখিল-মুখের ভাব না দেখিয়া কোনো কথার মানে বুঝা যায় না। অনেক সময় । সহরের সৌখীন প্ৰান্তর ডিজাইয়া শেষ বেলার রোদ তাদের গায়ে আসিয়া পড়িয়াছে, তাপের চেয়ে সে রোদের রঙ বেশী। মালতীর বিবৰ্ণ মুখে সতাই তার কথার ব্যাখ্যা ছিল। রাজকুমার জিজ্ঞাসা করিল, তোমার কি অসুখ করেছে ? না । অসুখ করেনি । বাড়ীতে না ডেকে এখানে আমাকে অপেক্ষা করতে बळ८ळ cकन गांव्ठी । বাড়ীর বাইরে তোমার সঙ্গে কথা বলতে ইচ্ছে হল। তাই। হয় নিজের বাড়ীতে নয়। অন্য কারো বাড়ীতে তোমার সঙ্গে এতদিন কথা বলেছি। আমায় একদিন সিনেমায় পৰ্য্যন্ত তুমি নিয়ে যাওনি আজ পৰ্য্যন্ত। রাজকুমার একটু ভাবিল। সাড়ে হু'3ার সময় স্যার কে, এল-এর সঙ্গে দেখা করতে হবে । পিওন দিয়ে চিঠি পাঠিয়েছিলেন। এমন করে লিখেছেন দেখা করার জন্য, একটা কিছু গোলমাল হয়েছে মনে হচ্ছে। স্তর কে, এল-কে ফোন করে দি, সাড়ে ন’টার সময় বাড়ী গিয়ে দেখা করব। তারপর সিনেমাখ TIK CVS 57 || না। আগে দেখা করে হাঙ্গামা চুকিয়ে এসে । তুমি এতক্ষণ কি করবে ? Bm ES S BKS S BD DSDB BDD DDD নাও। তুমি স্তর কে, এল এর সঙ্গে দেখা করতে যাবে, আমি বিশ্ৰাম করব।-শুয়ে থাকব একটু। তুমি লক্ষ্মী মেয়ে, মালতী। cञ्छ्न्नभाक्ष नरे ? আগে ছিলে, এখন কি আর তোমায় ছেলেমানুষ বলা যায় ? তুমি অনেক কষ্ট পেয়েছ মালতী। আজ থেকে তুমি श्चौ छन् । শুনিয়া মালতীর ভয় করিতে থাকে। সুখ-দুঃখের কথা সে কখনো ভাবে নাই। সুখে অথবা দুঃখে কোনদিন ভাৱ