পাতা:মুর্শিদাবাদের ইতিহাস-প্রথম খণ্ড.djvu/৬৮৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে চলুন অনুসন্ধানে চলুন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।

একাদশ অধ্যায় । Goost যুদ্ধক্ষেত্র হইতে শিবির উত্তোলন করিয়া দূর হইতে উভয় পক্ষের যুদ্ধ দর্শন করুন, এই রূপ প্রার্থনাও করা হয়। যদি আলিবর্দী জয়ী হন, তাহা হইলে তিনি নবাবকে যথাযোগ্য সন্মান প্রদর্শন করিবেন। যদি পরাজিত হন, তাহা হইলে নবাব যাহা আদেশ করিবেন, তাছাই পালন করিবেন। কিন্তু এরূপ প্রস্তাব কাৰ্য্যকর হইল না । যখন উভয় পক্ষের মধ্যে এরূপ প্রস্তাব চলিতেছিল, জগৎশেঠ নবাব পক্ষের পরামর্শানুসারে আলিবর্দী খার সৈন্তাধ্যক্ষের নিকট টিপ * প্রেরণ করিয়া আলিবর্দী খাকে ধুত ও সরফরাজের নিকট আনয়নের জন্ত পত্রাদি প্রেরণ করিতেছিলেন । + মস্তাফ খাঁ এই রূপ কয়েক খানি টিপ পাইয়া অপর কয়েক জন কৰ্ম্মচারীর সহিত আলিবর্দীর নিকট উপস্থিত হইয়া সমস্ত ব্যাপার তাহাকে অবগত করান এবং উহাকে তৎপর দিবসই যুদ্ধ করিতে পরামর্শ দেন। অন্যথা নানাপ্রকার বিশৃঙ্খলা ঘটবে বলিয়া প্রকাশ করেন। আলিবর্দী তাহার পরামর্শানুসারে স্বীকৃত হইয়া তৎক্ষণাং আপন সৈন্তদিগের মধ্যে বারুদ ও গোলাগুলি প্রদান করিতে আদেশ দিয়া সকলকে তৎপরদিবস যুদ্ধের জন্ত প্রস্তুত

  • বর্তমান নোট বা চেকের ন্যায় কাগজ। তাঁহাতে টাকা দিবার আদেশ লিখিত থাকিত ; টিপ ব্যবসায়িগণের মধ্যেই অধিক প্রচলিত ছিল।

মুতাক্ষরীনের অনুবাদক বলেন যে, আলিবর্দী ধ। নিজেই এই রূপ কৌশল অবলম্বন করিয়া জগৎশেঠের দ্বার সরফরাজের কর্মচারিগণকে বশীইত করিতে চেষ্টা করিয়াছিলেন, এবং তৎকালে মুর্শিদাবাদে এই রূপ কৰ। *াষ্ট্র হইয়াছিল । সরফরাজের এক জন কৰ্ম্মচারী প্রকাশ করিয়ছিলেন যে, তিনি ৪ হাজার টাকার এক খানি টিপ পাইয়াছিলেন। কথিত আছে, সরফরাজের কৰ্ম্মচারীরা এই রূপ টপ পাইর স্মৃত্তিক ও আবর্জন পূর্ণ করির কামান ছাড়িয়াছিলেন। Stewart P. 275.