পাতা:রজনী - বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়.djvu/১২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রজনীর কথা । রাম । আমি যদি মরি ? লব। “আমি তোমার বিষয় খাইব।” লবঙ্গ মনে মনে বলিত “আমি বিষ খাইব।” রামসদয়, তাহা মনে মনে জানিত । লবঙ্গ এত টাকা দিত, তবে বড়বাড়ীতে ফুল যোগান দুঃখ কেন? শুন । একদিন মার জ্বর। অন্তঃপুরে, বাবা যাইতে পারবেন লা—তবে আমি বৈ আর কে লবঙ্গলতাকে ফুল দিতে যাইবে ? আমি লবঙ্গের জন্য ফুল লইয়া ঢলিলাম। অন্ধ হই, যাই হই— কলিকাতার রাস্ত সকল আমার নথদর্পণ ছিল। বেভ্ৰহস্তে সৰ্ব্বত্র যাইতে পারতাম, কখন গাড়ি ঘোড়ার সম্মুখে পড়ি' নাই । অনেকবার পদচারীর ঘাড়ে পড়িয়াছি বটে—“তহ্লার কারণ কেহ কেহ অন্ধযুবতী দেখিয়া সাড়া দেয় না, বরং বলে " অ মালা : দেখতে পাসনে ? কাণ নাকি ?” আমি ভাবিতম ভুল লইয়া গিয়া লবঙ্গের কাছে গেলাম। দেখিয় লবঙ্গ বলিলেন, “কিলে কাণী—আবার ফুল লইয়া মরুতে এয়েচিস + ন ?” কাণী বলিলে আমার হাড় জলির বাইত—আমি কি কদম্য উত্তর দিতে বাইতেছিলাম, এমত সময়ে সেখানে হঠাৎ কচার পদধ্বনি শুনিলাম—কে আসিল । যে আসিল—সে বলল, “ এ কে ছোট মা ?” ছোট মা ! তবে রামসদরের পুত্র । রামসদয়ের কোন পুত্ৰ ! বড় পুত্রের কণ্ঠ একদিন শুনিয়াছিলাম—সে এমন অমৃতময় নহে—এমন করিয়া কৰ্ণবিবর ভরিয়া, সুখ ঢালিয়া দেয় নাই ! বুঝিলাম, এ ছোট বাবু।