পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (অচলিত) দ্বিতীয় খণ্ড.pdf/২০৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ব্ৰহ্ম মন্ত্র । * *の এই ষে সর্বাপেক্ষ অন্তরতর পরমাত্মা ইনি আমাদের পুত্র হইতে প্রিয়, বিত্ত হইতে প্রিয়, অন্য সকল হইতে প্রিয়। তিনি শুষ্ক জ্ঞানমাত্র নহেন, তিনি আমাদের আত্মার প্রিয়তম । আধুনিক হিন্দু সম্প্রদায়ের মধ্যে র্যাহারা বলেন ব্রহ্মকে আশ্রয় করিয়া কোন ধৰ্ম্ম সংস্থাপন হইতে পারে না, তাহা কেবল তত্ত্বজ্ঞানীদের অবলম্বনীয়, তাহারা উক্ত ঋষিবাক্য স্মরণ করিবেন । ইহা কেবল বাক্যমাত্র নহে,—প্রীতিরসকে অতি নিবিড় নিগুঢ় রূপে আস্বাদন করিতে না পারিলে এমন উদার উন্মুক্ত ভাবে এমন সরল সবল কণ্ঠে প্রিয়ের প্রিয়ত্ব ঘোষণা করা যায় না । তদেতৎ প্রেয়ঃ পুত্রাৎ প্রেয়ো বিত্তাৎ প্রেয়োহন্তস্মাং সৰ্ব্বস্মাৎ আস্তরতরং যদয়মাত্মা— ব্রহ্মর্ষি একথা কোন ব্যক্তিবিশেষে বদ্ধ করিয়া বলিতেছেন না—তিনি বলিতেছেন না, যে, তিনি আমার নিকট আমার পুত্র হইতে প্রিয়, বিত্ত হইতে প্রিয়, অন্ত সকল হইতে প্রিয়—তিনি বলিতেছেন আত্মার নিকটে তিনি সৰ্ব্বাপেক্ষা অন্তরতর—জীবাত্মামাত্রেরই নিকট তিনি পুত্র হইতে প্রিয়, বিত্ত হইতে প্রিয়, অন্য সকল হইতে প্রিয়—জীবাত্মা যখনই তাহাকে যথার্থরূপে উপলব্ধি করে তখনি বুঝিতে পারে তাহা অপেক্ষ প্রিয়তর আর কিছুই নাই । অতএব পরমাত্মাকে যে কেবল জ্ঞানের দ্বারা জানিব তদেতৎ, সত্যং, তাহা নহে, র্তাহাকে হৃদয়ের দ্বারা অতুভব করিব তদমুতং । র্তাহাকে সকলের অপেক্ষ অধিক বলিয়া জানিব, এবং সকলের অপেক্ষা অধিক বলিয়া প্রীতি করিব । জ্ঞান ও প্রেম সমেত আত্মাকে ব্রহ্মে সমর্পণ করার সাধনাই ব্রাহ্মধৰ্ম্মের সাধনা–তম্ভাবগতেন চেতসা এই সাধনা করিতে হইবে ; ইহা নীরস তত্ত্বজ্ঞান নহে, ইহা ভক্তিপ্রতিষ্ঠিত ধৰ্ম্ম । উপনিষদের ঋষি যে জীবাত্মামাত্রেরই নিকট পরমাত্মাকে সৰ্ব্বাপেক্ষ প্রীতিজনক বলিতেছেন তাহার অর্থ কি ? যদি তাহাই হইবে তবে আমরা তাহাকে পরিত্যাগ করিয়া ভ্ৰাম্যমান হই কেন ? একটি দৃষ্টান্ত দ্বারা ইহার অর্থ বুঝাইতে ইচ্ছা করি । কোন রসজ্ঞ ব্যক্তি যখন বলেন কাব্যরসাবতারণায় বাল্মীকি শ্রেষ্ঠ কবি—তখন একথা বুঝিলে চলিবে না যে কেবল র্তাহারই নিকট বাল্মীকির কাব্যরস সৰ্ব্বাপেক্ষা উপাদেয় । তিনি বলেন সকল পাঠকের পক্ষেই এই কাব্যরস সৰ্ব্বশ্রেষ্ঠ—ইহাই মনুষ্যপ্রকৃতি । কিন্তু কোন অশিক্ষিত গ্রাম্য জানপদ বাল্মীকির কাব্য অপেক্ষা যদি স্থানীয় কোন পাচালি গানে অধিক সুখ অনুভব করে তবে তাহার কারণ তাহার অজ্ঞতামাত্র । সে লোক অশিক্ষাবশতঃ বাল্মীকির কাব্য যে কি তাহ জানে না, এবং সেই কাব্যের রস যেখানে, অনভিজ্ঞতাবশতঃ সেখানে সে প্রবেশ লাভ করিতে পারে না—কিন্তু ९७