পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (অচলিত) প্রথম খণ্ড.pdf/১০৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


बन-कूल “তবে বা লো দুশ্চারিণী ! যেথা ইচ্ছা তোর কর তাই বাহা তোর কহিৰে হৃদয়— কিন্তু যত দিন দেহে প্রাণ রবে মোর— তোর এ প্রণয়ে আমি দিব না প্রশ্রয় ! আর তুই পাইবি না দেখিতে আমারে জলিব যদিন আমি জীবন-অনলে— স্বরগে বাসিব ভাল যা খুলী যাহারে প্রণয়ে সেথায় যদি পাপ নাহি বলে ! কেন বল পাগলিনী! ভালবাসি মোরে অনলে জালিতে চাস এ জীবন ভোরে ! বিধাতা যে কি আমার লিখেছে কপালে ! যে গাছে রোপিতে যাই শুকায় সমূলে ।” ভর্ৎসনা করিবে ছিল নীরদের মনে— আদরেতে স্বর কিন্তু হয়ে এল নত । কমলা নয়নজল ভরিয়া নয়নে মুখপানে চাহি রয় পাগলের মত ! নীরদ উদগামী আশ্র করি নিবারিত সবেগে সেখান হতে করিল প্রয়াণ । উচ্ছ্বাসে কমলা বালা উনমত্ত চিত অঞ্চল করিয়া সিক্ত মূছিল নয়ান। Ն-C)