পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (অচলিত) প্রথম খণ্ড.pdf/২২৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


चयनिळा । ञकिड । রবীন্দ্র-রচনাবলী এখনি দেখিতে নাথ পাবেন আমারে । ডাকিলেই কাছে গিয়ে সব লজ বিসজ্জিয়ে একেবারে পায়ে ধরে কেঁদে গিয়ে কব, *বল, নাথ, কি করেছি ? কি হয়েছে তব ?” এমন বিষন্ন হয়ে বসে আছি হেথা তবুও সে দূরে আছে– তবু সে এল না কাছে, তবুও সে শুধালে না একটিও কথা ! পাৰাণ বজেতে গড়া এ লজ্জা তাহার প্রেমবরিষার নদী ভাঙ্গিতে নারিল যদি, দয়াতেও ভাঙ্গিবে না হেরি অশ্রীধার ? লজ্জার একাধিপত্য যে নিষ্ঠুর মনে, প্রেম দয়া যে হৃদয়ে ৰাস করে ভয়ে ভয়ে, চরণে শৃঙ্খল বাধা লজ্জার শাসনে— অনিল, কি করিবি রে লয়ে হেন মন ? তুই চাস মুখে তোর হেরিলে বিষাদ ঘোর অশ্রুজলে অশ্রজল করিবে বর্ষণ । কত না আদরে তোর মুছাবে নয়ন ! তুই কি চাস রে হেন পাষাণমুৱতি দূরে দাড়াইয়া রবে— একটি কথা না কবে, সানার তরে যবে তুই ব্যগ্র অতি ? হায় রে অদৃষ্ট মোর, কিছুই হল না— সেই সব, সেই সব— সেই হাহাকাররব সেই অশ্রবারিধারা হৃদয়বেদনা ! [ অনিলের বেগে প্রস্থান [ স্বগত ] নয়নে আঁধার হেরি, ঘুরিছে সংসার, মা গো মা— কোথায় মা গো— পারি নে মা আর ! [ বৃক্ষতলে বসিয়া পড়িয়া ] গেলে তবে গেলে চলি নিষ্ঠুর— নিষ্ঠুর— ললিতা ৰে এক ধারে দাড়ায়ে রয়েছে হা রে