পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (চতুর্দশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/১০২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


পূরবী ক্ষণে ক্ষণে কাজের মাঝে দেয় নি কি দ্বার নাড়া— পাই নি কি তার সাড়া ? বাতায়নের মুক্তপথে স্বচ্ছ শরং-রাতে তার আলোটি মেশে নি কি মোর স্বপনের সাথে ? হঠাং তারি স্বরখানি কি ফাগুন-হাওয়া বেয়ে আসে নি মোর গানের পরে ধেয়ে ? কালে কানে কথাটি তার অনেক স্থখে দুখে বেজেছে মোর বুকে । 源 মাঝে মাঝে তারি বাতাস আমার পালে এসে নিয়ে গেছে হঠাং আমায় আনমনাদের দেশে, পথ-হারানো বনের ছায়ায় কোন মায়াতে ভুলে গেথেছি হার নাম-না-জান ফুলে । আমার তারার মন্ত্র নিয়ে এলেম ধরাতলে লক্ষ্যহারার দলে । বাসায় এল পথের হাওয়া, কাজের মাঝে খেলা, ভাসল ভিড়ের মুখর স্রোতে একলা প্রাণের ভেলা, বিচ্ছেদেরি লাগল বাদল মিলন-ঘন রাতে বাধনহারা শ্রাবণ-ধারাপাতে । ফিরে যাবার সময় হল তাই তো চেয়ে রই, আমার তারা কই ? গভীর রাতে প্রদীপগুলি নিবেছে এই পারে বাসাহারা গন্ধ বেড়ায় বনের অন্ধকারে ; স্বর ঘুমাল নীরব নীড়ে, গান হল মোর সার, কোন আকাশে আমার আপন তারা ? আগুেল জাহাজ ১ নভেম্বর, ১৯২৪