পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (চতুর্দশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৫৪২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


গ্রন্থ-পরিচয় ●ቖፃ দুঃখ চেয়ে আরো বড়ো না থাকিত কিছু জীবনের প্রতিদিন হত মাথা নিচু, তবে জীবনের অবসান মৃত্যুর বিদ্ধপহাস্তে আনিত চরম অসম্মান । “किरणाब्र ८थम", ङ्ठौब्र उवक ‘अजांना cकांन् छषां'ब्र नब्र তার পরে সেই তীরে বসে কত কঁাদন কাদা । ওপার পানে যাবার লাগি আধার রাতে ছিলাম জাগি, কে জানিত তটচ্ছায়ায় তরী ছিল বাধা, মিছে কত কঁাদন কাদা । “আনমনা” ও “বদল” কবিতা দুইটির গীত-রূপ প্রথম সংস্করণ তৃতীয় খণ্ড গীতবিতানে ভ্রষ্টব্য । গান দুইটির প্রথম ছত্র যথাক্রমে "আনমন, আনমনা” ও “তার হাতে ছিল হাসির ফুলের ভার” । লেখন লেখন ১৩৩৪ সালে গ্রন্থাকারে প্রকাশিত হয় । এই গ্রন্থ সম্বন্ধে রবীন্দ্রনাথ প্রবাসীতে (কাতিক ১৩৩৫ ) যে প্রবন্ধ প্রকাশ করেন তাহা নিচে মুদ্রিত হইল। লেখন যখন চীনে জাপানে গিয়েছিলেম প্রায় প্রতিদিনই স্বাক্ষরলিপির দাবি মেটাতে হত। কাগজে, রেশমের কাপড়ে, পাখায় অনেক লিখতে হয়েছে । সেখানে তারা আমার বাংলা লেখাই চেয়েছিল, কারণ বাংলাতে একদিকে আমার, আবার আর-এক দিকে সমস্ত বাঙালী জাতিরই স্বাক্ষর। এমনি করে যখন তখন পথে-ঘাটে যেখানেসেখানে দু-চার লাইন কবিতা লেখা আমার অভ্যাস হয়ে গিয়েছিল। এই লেখাতে আমি আনন্দও পেতুম। দু-চারটি বাক্যের মধ্যে এক-একটি ভাবকে নিবিষ্ট করে দিয়ে তার ষে একটি বাহুল্যবর্জিত রূপ প্রকাশ পেত তা আমার কাছে বড়ো লেখার চেয়ে অনেক সময় আরো বেশি আদর পেয়েছে। আমার নিজের বিশ্বাস বড়ো বড়ো কবিতা, পড়া আমাদের অভ্যাস বলেই কবিতার আয়তন কম হলে তাকে কবিতা বলে উপলব্ধি