পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (চতুর্বিংশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৪১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রবীন্দ্র-রচনাবলী ফিল্ফিস করে পাতায় পাতায়, উলখু করে হাওয়া । ছায়ার আড়ালে গন্ধরাজের তন্দ্ৰাজড়িত চাওয়া । চন্দনিদহে থইখই জল বিকৃষিক করে আলোতে, জামরুলগাছে ফুলকাটা কাজে বুৎনি সাদায় কালোতে । প্রহরে প্রহরে রাজার ফটকে বহুদূরে বাজে ঘণ্টা। জেগে উঠে বসে ঠিকান-হারানো শূন্ত-উধাও মনটা । বুঝিতে পারি নে কত কী শব্দ– মনে হয় যেন ধারণা, রাতের বুকের ভিতরে কে করে অদৃপ্ত পদচারণা। গাছগুলো সব ঘুমে ডুবে আছে, তন্দ্র। তারায় তারায়, কাছের পুখিৰী স্বপ্নপ্লাবনে দূরের প্রান্তে হারায়। রাতের পৃথিবী ভেসে উঠিয়াছে বিধির নিশ্চেতনায়, আভাষ আপন ভাষার পরশ খোজে সেই আনমনায় । রক্তের দোলে যে-সব বেদন স্পষ্ট বোধের বাহিরে স্থির পরিচয় নাহি রে । , প্রভাত-আলোক আকাশে আকাশে এ চিত্র দিবে মুছিয়া,