পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (চতুর্বিংশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৫০৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রবীন্দ্র-রচনাবলী বিমুখত যে মন হঠাৎ-প্লাবনী নদীর প্রায় অভাবিত পথে কথন বাকিয়া যায় সে তার সহজ গতি, এ বিমুখতায় হোক-না যতই ক্ষতি। বাধা পথে তারে বাধিয়া রাখিবে যদি বর্ষা নামিলে খরপ্রবাহিনী নদী ফিরে ফিরে তার ভাঙিয়া ফেলিবে কূল, ভাঙিবে তোমার ভুল । স্বৈরপ্রবাহবেগে দুর্দাম তার ফেনিল হাস্য উচ্ছসি উঠে জেগে । প্রাণের প্রচুর পণ্য আহরি ভাসাইয়া দিলে ভঙ্গুর তরী, উচ্ছ্বাসে তারে পাষাণে আছাড়ি করিবে সে পরিহাস । খেলার ছলেতে ঘটাবে সর্বনাশ । এ খেলারে যদি খেলা বলি মান, হাসিতে হাস্য মিলাইতে জান, তবেই তোমার জয় । সহজের স্রোতে সহজ মনেই ভাসিয়া চলিতে হয় । পেয়েছি বলিয়া যদি জাগে অহমিকা তা হলে কপালে বিদ্রুপ আছে লিখা । আলগা লীলায় নেই দেওয়া নেই পাওয়া, সহাস নয়নে শুধু দূর থেকে চাওয়া, মানবমনের রহস্য কিছু শিখা । মূল্য যাহার আছে কোনো একটুও সাবধান হয়ে তারে দূরে দূরে খুয়ো,