পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (তৃতীয় খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৪৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


రిy রবীন্দ্র-রচনাবলী স্বাক্টছাড়া পাগলের দেখিয়া ব্যাপার । আকাশ রয়েছে চাহি, নয়নে নিমেষ নাহি, হুহু ক'রে সমীরণ ছুটেছে অবাধ । সূর্য ওঠে প্রাতঃকালে পূর্ব-গগনের ভালে, সন্ধ্যাবেলা ধীরে ধীরে উঠে আসে চাদ । জলরাশি অবিরল করিতেছে কলকল, অতল রহস্ত যেন চাহে বলিবারে । কাম্য ধন আছে কোথা জানে যেন সব কথা, , সে-ভাষা যে বোঝে সেই খুজে নিতে পারে। কিছুতে ভ্ৰক্ষেপ নাহি, মহাগাথা গান গাহি সমুদ্র আপনি শুনে আপনার স্বর। কেহ যায়, কেহ আসে, কেহ কঁাদে, কেহ হাসে, খ্যাপী তীরে খুজে ফিরে পরশ-পাথর । এক দিন, বহুপূর্বে, আছে ইতিহাস— নিকষে সোনার রেখা সবে যেন দিল দেখা— আকাশে প্রথম স্বষ্টি পাইল প্রকাশ । মিলি যত স্বরাস্বর কৌতুহলে ভরপুর এসেছিল পা টিপিয়া এই সিন্ধুতীরে । অতলের পানে চাহি নয়নে নিমেষ নাহি নীরবে দাড়ায়ে ছিল স্থির নতশিরে । বহুকাল স্তব্ধ থাকি শুনেছিল মুদে আঁখি এই মহাসমুদ্রের গীতি চিরন্তন ; তার পরে কৌতুহলে বfাপায়ে অগাধ জলে করেছিল এ অনন্ত রহস্য মন্থন । বহুকাল দুঃখ সেবি নিরথিল, লক্ষ্মীদেবী উদিলা জগৎমাঝে অতুল সুন্দর । সেই সমুদ্রের তীরে শীর্ণদেহে জীর্ণচীরে খ্যাপা খুজে খুজে ফিরে পরশ-পাথর ।