পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (ত্রয়োবিংশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৫৫১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


@ 8o রবীন্দ্র-রচনাবলী আপাদমস্তক তাহার ষে বহুমূল্য অলংকারের তালিকা পাওয়া গিয়াছিল এবং মিলনোৎসবের যে অভূতপূর্ব সমারোহের বর্ণনা শুনা যাইত, তাহাতে অনেক প্রবীণবয়স্ক সুবিবেচক ব্যক্তির মন চঞ্চল হইতে পারিত— কিন্তু বালকের মন যে মাতিয়া উঠিত এবং চোখের সামনে নানা বর্ণে বিচিত্র আশ্চর্ষ মুখচ্ছবি দেখিতে পাইত তাহার মূল কারণ ছিল সেই দ্রুত-উচ্চারিত অনর্গল শব্দচ্ছটা এবং ছন্দের দোলা । —জীবনস্মৃতি, শিক্ষারম্ভ অধ্যায় ‘শুামা’ ও ‘কাচা আম’ কবিতা দুইটি তথ্যের বিচারে জুড়ি কবিতা । এই প্রসঙ্গে ‘জীবনস্মৃতিতে বধূসমাগমের সংক্ষিপ্ত বিবরণটুকু তুলনীয়— তাহার পরে গলায় সোনার হারটি পরিয়া বাড়িতে যখন নববধূ আসিলেন তখন অন্তঃপুরের রহস্ত আরও ঘনীভূত হইয়া উঠিল । ধিনি বাহির হইতে আসিয়াছেন অথচ যিনি ঘরের, যাহাকে কিছুই জানি না অথচ যিনি আপনার, তাহার সঙ্গে ভাব করিয়া লইতে ভারি ইচ্ছা করিত । —জীবনস্মৃতি, প্রত্যাবর্তন অধ্যায় পাণ্ডুলিপিতে ‘খাম’ কবিতার ষষ্ঠ ও সপ্তম পঙক্তির নিম্নরূপ আদিপাঠ পাওয়া ६ोंध्र তেরো-চোদ্দ বছরের মেয়ে, বারো ছিল বয়স আমার । 'জান-আজান কবিতার ‘প্রবাসী’তে-প্রকাশিত পাঠে সর্বশেষে দুইটি অতিরিক্ত ছত্র মুদ্রিত হইয়াছিল— তাহাতে আভাসে থাকে চরমের কথা, অস্তগিরিশিখরের নক্ষত্রের রহস্তবায়তা । “যাত্র কবিতাটিতে যে স্বতিচিত্র বর্ণিত হইয়াছে সেই প্রসঙ্গে যুরোপ-যাত্রীর ডায়ারি’ গ্রন্থের দ্বিতীয় খণ্ড বা ভ্রমণের ডায়াবির ( বিচিত্র প্রবন্ধ : যুরোপ-যাত্রী) 'শুক্রবার। ২২শে আগস্ট ১৮৯০’ তারিখের অংশটি রবীন্দ্র-রচনাবলীর প্রথম খণ্ডে @6 "-b○ श्रृईोग्न अठेवा । ‘সময়হারা’ কবিতার ‘প্রবাসী’তে প্রকাশিত পাঠের সূচনায় ছিল— छाङां८द्ररङ ब८ण बर्थन ‘भcब्रtछ् ७ई cणांक' তাহার তরে মিথ্যা করা শোক,