পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (ত্রয়োবিংশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৯৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


Եr8 রবীন্দ্র-রচনাবলী কতু মুছবেগে ধীরে ধবনিরূপে মোর শিরে ম্পর্শ দিয়ে চেতনারে জাগাইত ধেশয়ালি চিন্তায়, নিয়ে যেত স্বষ্টির আদিম ভূমিকায় । চোখে-দেখা এ বিশ্বের গভীর স্বদূরে রূপের অদৃশু অস্তঃপুরে ছন্দের মন্দিরে বলি রেখা-জাদুকর কাল আকাশে আকাশে নিত্য প্রসারে বস্তুর ইজ জ tল । যুক্তি নয়, বুদ্ধি নয়, শুধু ষেথা কত কী যে হয়— কেন হয় কিসে হয় সে প্রশ্নের কোনো নাহি মেলে উত্তর কথনে । যেথা আদিপিতামহী পড়ে বিশ্ব-পাচলির ছড়া ইঙ্গিতের অকুপ্রাসে গড়া— কেবল ধ্বনির ঘাতে বক্ষ স্পদে দোলন জুলায়ে মনেরে ভুলায়ে নিয়ে যায় অস্তিত্বের ইন্দ্র জাল সেই কেন্দ্র স্থলে, বোধের প্রত্যুষে যেথা বুদ্ধির প্রদীপ নাহি জলে । [ শাস্তিনিকেতন ] ミ >} > e}\ごbr বধু ঠাকুরমা দ্রুততালে ছড়া ধেত প’ড়ে— ভাবপানা মনে আছে—“বউ আসে চতুদোলা চ’ড়ে আম-কঁঠালের ছায়ে, . গল;য় মেতির মালা, সোনার চরণচক্ৰ পায়ে ।” বfলকের প্রাপে প্রথম সে নারীমন্ত্র আগমনীগানে