পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (দ্বাদশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/১৩৮

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ফাল্গুনী Ꮌ ᎼᏄ আমরা সব বয়েসের গুটি-কাটা প্রজাপতি । ",* কোটাল । ( জনাস্তিকে মাঝির প্রতি ) পাগল রে, একেবারে উন্মাদ পাগল ! মাঝি। বাপু, এখন তোমরা কী করবে। চন্দ্রহাস । আমরা যাব । কোটাল। কোথায় । চন্দ্রহাস । সেটা আমরা ঠিক করি নি। o কোটাল। যাওয়াটাই ঠিক করেছ কিন্তু কোথায় যাবে সেটা ঠিক কর নি ? চন্দ্রহাস । সেটা চলতে চলতে আপনি ঠিক হয়ে যাবে। কোটাল। তার মানে কী হল । তার মানে হচ্ছে— গান চলি গো, চলি গো, যাই গো চলে । পথের প্রদীপ জলে গো গগন-তলে । বাজিয়ে চলি পথের বঁশি, ছড়িয়ে চলি চলার হাসি, রঙিন বসন উড়িয়ে চলি জলে স্থলে । কোটাল। তোমরা বুঝি কথার জবাব দিতে হলে গান গাও ? ই ! নইলে ঠিক জবাবটা বেরয় না। সাদা কথায় বলতে গেলে ভারি অস্পষ্ট হয়, বোঝা যায় না । কোটাল। তোমাদের বিশ্বাস, তোমাদের গানগুলো খুব পষ্ট ? চন্দ্রহাস । হা, ওতে সুর আছে কিনা ৷ গান পথিক ভুবন ভালোবাসে পথিকজনে রে । এমন স্বরে তাই সে ডাকে ক্ষণে ক্ষণে রে । ծ Հկ:Ջ