পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (দ্বাদশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৪২৭

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রবীন্দ্র-রচনাবলী وی \ o 8 দেখা যাইতেছে ম-এর দৃষ্টান্তগুলি বেশ সাধু শাস্ত ভাবের নহে, কিছু কক্ষ রকমের। বোধ হয় চিন্তা করিয়া দেখিলে দেখা যাইবে, সচরাচর কথাতেও আমরা ম অক্ষরটাকে ট-এর পরিবর্তে ব্যবহার করি, অন্তত ব্যবহার করিলে কানে লাগে না, কিন্তু সে-সকল জায়গায় ম আপনার মেজাজটুকু প্রকাশ করে। আমরা বিষ-মিষ বলিতে পারি কিন্তু সন্দেশ-মন্দেশ যদি বলি তবে সন্দেশের গৌরবটুকু একেবারে নষ্ট হইয়া যাইবে । দুটো ঘুষোমুষো লাগিয়ে দিলেই ঠিক হয়ে যাবে, এ কথা বলা চলে, কিন্তু বন্ধুকে যত্নমত্ব বা গরিবকে দানমান করা উচিত, একেবারে অচল। হিংসে-মিংসে করা যায়, কিন্তু ভক্তিমক্তি করা যায় না ; তেমন তেমন স্থলে খোচা-মোচা দেওয়া যায় কিন্তু আদর-মাদর নিষিদ্ধ। অতএব ট-এর ন্যায় ফ ও ম প্রশাস্ত নিরপেক্ষ স্বভাবের নহে, ইহা নিশ্চয় । তার পরে, কতকগুলি বিশেষ কথার বিশেষ বিকৃতি প্রচলিত আছে। সেগুলি সেই কথারই সম্পত্তি ; যেমন পড়েহড়ে বেছেগুছে মিলেজুলে খেয়েদেয়ে মিশেগুশে সেজেগুজে মেখেচুখে জুটেপুটে লুটেপুটে চুকেৰুকে বকেঝকে। এইগুলি বিশেষ প্রয়োগের দৃষ্টাস্ত । 懿 উল্লিখিত তালিকাটি ক্রিয়াপদের। এখানে বিশেষ পদেরও দৃষ্টান্ত দেওয়া যাইতে পারে : কাপড়-চোপড় আশপাশ বাসন-কোসন রসকস রাবদলব গিন্নিবান্নি তাড়াহুড়ে৷ চোটপাট চাকর-বাকর হাড়িকুড়ি ফকিছুকি আঁকজোকএলাগোল এলোথেলোবেঁটেখেটে খাবার-দাবার ছুতোনাত চাষাভুষো অন্ধিসন্ধি অলিগলি হাবুডুবু নড়বড় হুলস্থল। এই দৃষ্টাস্তগুলির গুটিকয়েক কথার একটা উলটাপালটা দেখা যায় ; বিকৃতিটা আগে এবং মূলশব্দটা পরে, যেমন : আশপাশ অন্ধিসন্ধি আলিগলি হাবুডুবু হুলস্থল। উল্লিখিত তালিকার প্রথমার্ধের শেষ অক্ষরের সহিত শেষার্ধের শেষ অক্ষরের মিল পাওয়া যায়। কতকগুলি কথা আছে যেখানে সে-মিলটুকুও নাই ; যেমন : দৌড়ধাপ পুজিপাট কান্নাকাটি তিতিবিরক্ত । 't, এইবার আমরা ক্রমে ক্রমে একটা জায়গায় আসিয়া পৌছিতেছি যেখানে জোড়াশব্দের দুইটি অংশই অর্থবিশিষ্ট । সে স্থলে সংস্কৃত ব্যাকরণের নিয়মানুসারে তাহাকে সমাসের কোঠায় ফেলা উচিত ছিল। কিন্তু কেন যে তাহ সম্ভবপর নহে দৃষ্টাস্তের ১ সংস্কৃতভাষায় কুণ্ডি শব্দের অর্থ পাত্রবিশেষ, সম্ভবত ইহা হইতে হাড়িজুড়ি শব্দের কড়ি উৎপন্ন ; এই-সকল তালিকার মধ্যে এমন আরও থাকিতে পারে যে-স্থলে এই দোসর শব্দগুলিকে অর্থহীনের কোঠায় ফেলা চলিবে না । ২ ছুতোনাত শধে ছুতা কী নিয়ম অনুসারে ছুতে হইয়াছে এবং চাষাভূষা শব্দের ভুষ কী কারণে ভূযে হইল পূর্বেই তাহ বলিয়াছি।