পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (দ্বাদশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৯০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বলাকা নিমেষতরে যুগে যুগান্তরে দিবে না রাশ-ঢিলা ৷ শিশু হয়ে এলি মায়ের কোলে, সেদিন গেল ভেসে । যৌবনেরি বিষম দোলার দোলে কাটল কেঁদে হেসে । রাত্রে যখন হচ্ছিল দীপ জালা কোথায় ছিল আজকে দিনের পাল। অtবার কবে কী স্বর বাধা হবে অাজকে পালার শেষে । চলতে যাদের হবে চিরকালই নাইকে তাদের ভার। কোথা তাদের রৈবে থলি-থালি, কোথা বা সংসার । দেহযাত্রা মেঘের খেয়া বাওয়া, মন তাহদের ঘূর্ণ-পাকের হাওয়া ; বেঁকে বেঁকে অাকার এ কে এ কে চলছে নিরাকার । ওরে পথিক, ধর না চলার গান, বাজা রে একতারা । এই খুশিতেই মেতে উঠুক প্রাণ— নাইকে কুল-কিনারা । পণয়ে পায়ে পথের ধীরে ধীরে কান্না-হাসির ফুল ফুটিয়ে যা রে, প্রাণ-বসন্তে তুই-যে দখিন হাওয়া গৃহ-বাধন-হারা ! 이