পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (দ্বাবিংশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৫৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রবীন্দ্র-রচনাবলী সন্ধেবেলায় বন্ধ আসা-যাওয়া, হাস-বলাকার পাখীর ঘায়ে চমকেছিল হাওয়া । ডাঙায় উকুন পেতে রান্না চড়েছিল মাঝির বনের কিনারেতে। শেয়াল ক্ষণে ক্ষণে উঠতেছিল ডেকে ডেকে ঝাউয়ের বনে বনে। কোথায় গেল সেই নবাবের কাল, কাজির বিচার, শহর-কোতোয়াল । পুরাকালের শিক্ষা এখন চলে উজান-পথে, ভয়ে-কাপা যাত্রা সে নেই বলদ-টানা রথে। ইতিহাসের গ্রন্থে আরো খুলবে নতুন পাতা, নতুন রীতির স্থত্রে হবে নতুন জীবন গাথা। ষে হোক রাজা যে হোক মন্ত্রী কেউ রবে না তারা, বইবে নদীর ধারা— জেলেডিঙি চিরকালের নেীকো মহাজনি, উঠবে দাড়ের ধ্বনি । প্রাচীন অশথ আধা ডাঙায় জলের পরে আধা, সারারাত্রি গুড়িতে তার পানসি রইবে বাধা । তখনো সেই বাজবে কানে যখন যুগান্তর— 'এপার গঙ্গা ওপার গঙ্গা, মধ্যিখানে চর।” আলমোড়া ר סיכל גs 4 C