পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (দ্বিতীয় খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/১৭৬

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


Ꮌ© & রবীন্দ্র-রচনাবলী কোথা হতে নিজাহীন ८ङ्गोणां नौ िनि কোকিল গাহিছে কুহুম্বরে। সেই পুরাতন তান প্রকৃতির মর্ম-গান পশিতেছে মানবের ঘরে । বসি আঙিনার কোণে গম ভাঙে দুই বোনে, গান গাহে শ্রাস্তি নাহি মানি ; বাধা কুপ, তরুতল, বালিকা তুলিছে জল খরতাপে মান মুখখানি । দূরে নদী, মাঝে চর, বসিয়া মাচার পর শস্তখেত আগলিছে চাষি ; রাখালশিশুরা জুটে নাচে গায় খেলে ছুটে ; দূরে তরী চলিয়াছে ভাসি। কত কাজ কত খেলা, কত মানবের মেলা, স্থখদুঃখ ভাবনা অশেষ, তারি মাঝে কুহুস্বর একতান সকাতর কোথা হতে লভিছে প্রবেশ । নিখিল করিছে মগ্ন জড়িত মিশ্রিত ভগ্ন গীতহীন কলরব কত, পড়িতেছে তারি পর পরিপূর্ণ স্বধাস্বর পরিস্ফুট পুষ্পটির মতো। এত কাও, এত গোল, বিচিত্র এ কলরোল ংসারের আবর্ত-বিভ্রমে, তবু সেই চিরকাল অরণ্যের অন্তরাল কুহুধ্বনি ধ্বনিছে পঞ্চমে । যেন কে বসিয়া আছে বিশ্বের বক্ষের কাছে যেন কোন সরলা স্বন্দরী, যেন সেই রূপবর্তী সংগীতের সরস্বতী সন্মোহন বীণা করে ধরি।