পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (পঞ্চদশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৩৪৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


বসন্ত । ৩২৯ কার নাচনের নূপুর বাজে জানি না যে । তোরে ক্ষণে ক্ষণে চমক লাগে । কোন অজানার ধেয়ান যে তোর মনে জাগে । কোন রঙের মাতন উঠল দুলে ফুলে ফুলে, ( ও চাপা, ও করবী ) কে সাজালে রঙিন সাজে জানি না যে । কবি । ঋতুরাজের দূতেরা ভাবছে কেউ খবর পায় নি— পায়ের শব্দ শোনা যাচ্ছে না। কিন্তু পায়ের শব্দ যে হৃৎকম্পনের মধ্যে ধরা পড়ে । মাধবী সে কি ভাবে গোপন রবে লুকিয়ে হৃদয় কাড়া । তাহার আসা হাওয়ায় ঢাকা, সে যে স্বষ্টিছাড়া । হিয়ায় হিয়ায় জাগল বাণী, পাতায় পাতায় কানাকানি, ‘ওই এল যে’, ‘ওই এল যে’ পরান দিল সাড়া । এই তো আমার আপনারি এই ফুল ফোটানোর মাঝে তারে দেখি নয়ন ভীরে নানা রঙের সাজে । এই-ষে পাখির গানে গানে চরণধ্বনি বয়ে আনে, বিশ্ববীণার তারে তারে এই তো দিল নাড়া ।