পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (পঞ্চদশ খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৯০

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রবীন্দ্র-রচনাবলী বিলুপ্ত করিবে দূরে উন্মুক্ত বাতাস দুর্বল দীপের গাঢ় বিষতপ্ত কলুষনিশ্বাস । আলোকের জয়ধ্বনি উঠিবে উচ্ছ্বসি,— নাম কি উষসী । [ শ্রাবণ ?-আশ্বিন ১৩৩৫ ] ছায়ালোক যেথায় তুমি গুণী জ্ঞানী, যেথায় তুমি মানী, যেথায় তুমি তত্ত্ববিদের সেরা, আমি সেথায় লুকিয়ে যেতে পথ পাব না জানি, সেথায় তুমি লোকের ভিড়ে ঘেরা। সেথায় তোমার বুদ্ধি সদাই জাগে, চক্ষে তোমার আবেশ নাহি লাগে, আমার ভীরু হৃদয় ছায়া মাগে, তোমার সেথায় আলোক খরতর, যখন সেথা চাহ আমার বাগে সংকোচে প্রাণ র্কাপে থর থর । মোহভাঙা দৃষ্টি তোমার যখন আঘাত হানে, যায় নিখিলের রহস্যদ্বার টুটে, এক নিমেষে অপরূপের রূপের মধ্যখানে অস্ত্র যন্ত্র প্রকাশ পেয়ে উঠে । বসুন্ধরার শু্যামল প্রাণের ঢাকা রূঢ় পাথর গোপন ক’রে রাখা, ভিতরে তার কতই আঁকাবাক৷ কতকালের দাহন-ইতিহাসে, ফাটলধরা কত-যে দাগ আঁকা তোমার চোখে বাহির হয়ে আসে ।