পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (সপ্তম খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/২৯১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ক্ষণিকা २११ তাদের ছাদে যখন ওঠে তারা আমার ছাদে দখিন হাওয়া ছোটে তাদের বনে ঝরে শ্রাবণ-ধারা, আমার বনে কদম ফুটে ওঠে । আমাদের এই গ্রামের নামটি খঞ্জনা, আমাদের এই নদীর নামটি অঞ্জনা, আমার নাম তো জানে গায়ের পাচজনে, আমাদের সেই তাহার নামটি রঞ্জন । দুই তীরে আমি ভালোবাসি আমার নদীর বালুচর, শরৎকালে যে নির্জনে চকাচকির ঘর । যেথায় ফুটে কাশ তটের চারি পাশ, শীতের দিনে বিদেশী সব হাসের বসবাস । কচ্ছপের ধীরে রৌদ্র পোহয় তীরে, দু-একখানি জেলের ডিঙি সন্ধেবেলায় ভিড়ে । আমি ভালোবাসি আমার নদীর বালুচর, শরৎকালে যে নির্জনে চকাচকির ঘর । "|>さ。