পাতা:রবীন্দ্র-রচনাবলী (সপ্তম খণ্ড) - বিশ্বভারতী.pdf/৩১১

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ক্ষণিকা দিবালোকহারা সংসারে আজ কোনোখানে কারো নাহি কোনো কাজ, জনহীন পথ ধেমুহীন মাঠ যেন সে অঁাক— বৰ্মণঘন শীতল আঁধারে জগং ঢাকা । হে নিরুপম, চপলত| আজি যদি ঘটে তবে করিয়ে ক্ষমা ৷ তোমার দুখানি কালো আঁপি-পরে শু্যাম আষাঢ়ের ছায়াখানি পড়ে, ঘন কালো তব কুঞ্চিত কেশে যুগীর মাল । তোমারি ললাটে নববরমার বরণডাল । ১ আষাঢ় কৃষ্ণকলি কৃষ্ণকলি অামি তারেই বলি, কালো তারে বলে গায়ের লোক । মেঘল দিনে দেখেছিলেম মাঠে কালে মেয়ের কালে হরিণ-চোখ । ঘোমটা মাথায় ছিল না তার মোটে, মুক্তবেণী পিঠের পরে লোটে । কালে ? তা সে যতই কালো হোক দেখেছি তার কালে হরিণ-চোখ । ఫిన్త )