পাতা:রূপান্তর-রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.djvu/২৪৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


রূপান্তর - পাশভ্যামবগৃহ শুরুকঠিনং তদবীক্ষ্য দূরে জহাবস্থানে পততামতীব মহতামেতাদৃশী স্তাদগতিঃ ॥ —বেতালভট্ট : নীতিপ্রদীপ, ৮ সিংহনখরের দ্বারা উৎপাটিত একটি গজমুক্ত বনের মধ্যে পড়িয়াছিল, কোনো ভৗলরমণী দূর হইতে দেখিয়া ছুটিয়া গিয়া তাহা তুলিয়া লইল— যখন টিপিয়া দেখিল তাহ পাকা কুল নহে, তাহা মুক্তামাত্র, তখন দূরে ছুড়িয়া ফেলিল । —বাজে কথা, বিচিত্র প্রবন্ধ কবীন্দ্রাণাং চেতঃ কমলবনমালাতপরুচিং ভজন্তে যে সস্তঃ কতিচিদরুণামেব ভবতীম্। বিরিঞ্চিপ্রেয়স্তান্তরুণতরঙ্গারলহরীং গভীরাভিৰ্বাঙ্গভির্বিদধাতি সভারঞ্জনময়ীম্ ॥ -sइब्रांछर्षि : ख्यांबन्चलझ्द्रैो, ७७ কবীন্দ্রদের চিত্তকমলবনমালার কিরণলেখা যে তুমি, তোমাকে যারা লেশমাত্র ভজনা করে তারাই গভীরবাক্য-দ্বারা সরস্বতীর সভারঞ্জনময়ী তরুণলীলালহরী প্রকাশ করতে পারে । —তৃতীয় অঙ্কের দ্বিতীয় দৃপ্ত, চিরকুমারসভা বহষ্ঠী সিন্দূরং প্রবলকবরীভারতিমিরদ্বিষাং বৃন্দৈর্বনীকৃতমিব নবীনার্ককিরণম্। তনোতু ক্ষেমং নস্তব বদনসৌন্দর্যলহরীপরীবাহশ্রোতঃসরণিরিব সীমন্তসরণিঃ ॥ —শঙ্করাচার্ষ : আনন্দলহরী, ৪৪ ঐ সিথির রেখা আমাদের কল্যাণ দিক, যে রেখাটি তোমার মুখসৌন্দর্যধারার শ্ৰোতঃপথের মতো । আর, যে সি দুর আঁকা রয়েছে তোমার ঐ সিথিতে, সে যেন নবীন সূর্যের আলো, তাকে ঘনকবরীভারের অন্ধকার শক্র হয়ে বন্দী করে রেখেছে। ১১ —গদ্য ছন্দ, ছপা १२ ॐ