পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (ত্রয়োদশ সম্ভার).djvu/২৩৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


अtथब्र प्रांरौ একবার এ্যাটেম্পটু করেচ, পরশু আর একবার করেচ, কিন্তু এর পরে ইক উই মিট-ইউ নে ? মুমিত্র উদ্বেগচকিত হইয়া জিজ্ঞাসা করিল, এ সব কথার মানে । এ্যটেম্পট बह्णब्रांख्र एवं ? - ডাক্তার এ প্রশ্ন কানেও তুলিলেন না, কহিলেন, কৃষ্ণ আইয়ার, আই অ্যাম সরি । আইয়ার মূখ অবনত করিল, কিন্তু উত্তর দিল না। ডাক্তার পকেট হইতে ঘড়ি বাহির করিয়া দেখিলেন, ভারতীর হাত ধরিয়া একটুখানি আকর্ষণ করিয়া বলিলেন, এইবার চল তোমাকে বাসায় পৌছে দিয়ে আমি যাই। ওঠ । ভারতী স্বপ্নাবিষ্টের ন্যায় বসিয়াছিল, ইঙ্গিতমাত্র নিঃশব্দে উঠিয়া দাড়াইল । তাহাকে সম্মুখে রাখিয়া তিনি ঘর হইতে বাহির হইয়া গেলেন, শুধু দ্বারের কাছ হইতে একবার সকলকে উদেহু করিয়া বলিলেন, গুড নাইট ! এই বিদায় বাণীর কেহ প্রত্যুত্তর দিল না, অভিভূর্তের ন্যায় সকলে স্তন্ধ হইয়া বগিয়া রহিল । ভারতী নীচে নামিয়া গেলে, ডাক্তার উপরের দিকে চোখ রাধিয়া যখন ধীরে ধীরে নামিতেছিলেন, অকস্মাং কপাট খুলিয়া শশী মুখ বাহির করিয়া বলিল, কিন্তু আমার যে আপনাকে ভয়ানক প্রয়োজন ডাক্তার। এই বলিয়া সে ফ্ৰতপদে নামিয়া তাহার পাশে আসিয়া দাড়াইল, রুদ্ধশ্বাসে কহিল, আমি ত মানুষের মধ্যেই নই ডাক্তারবার, কোনদিন আপনার কোন কাজে লাগবার শক্তিই আমার নেই, কিন্তু আপনার ঋণ আমি চিরদিন মনে করে রাখবো। এ আমি ভুলব না । ডাক্তার সঙ্গেহে তাহার হাতখানি টানিয়া লইয়া বলিলেন, কে বলে তোমাকে মানুষ নয়, শশী ? তুমি কবি, তুমি গুণী, তুমি সকল মানুষের বড়। আর আমার কাছে তোমার ঋণ যদি কিছু সত্যিই থাকে, সে তো না তোলাই ভাল । শশী, বলিল, না, আমি ভুলব না । কিন্তু, যেখানেই থাকুন, বা কিছু আমার আছে সমস্তই আপনার—এ কথা কিন্তু আপনিও ভুলতে পাবেন না । উভয়ে ভারতীর কাছে আসিয়া পৌঁছিতে সে উৎসুক হইয়া জিজ্ঞাসা করিল, कि शांझ ? ডাক্তার সহাস্তে বলিলেন, অসময়ে ওর ত কোন বিপদই ছিল না, কিন্তু হঠাৎ সময়টা ভাল হয়ে পড়াতেই ওর মহা চিন্তা হয়েচে, পাছে কৃতজ্ঞতার ঋণ আর মনে না থাকে । তাই ছুটে বলতে এসেচে, ওর বা কিছু সমস্ত আমার । ভারতী বলিল, তাই নাকি শশীবাবু ? ९३७