পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (দশম সম্ভার).djvu/৩৮২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শরৎ-সাহিত্য-সংগ্ৰন্থ তোমার ৰিদায়-অভিনম্বনে যারা যোগ দিয়েছিলেন তাদের মুখে কি কি হয়েছিল সব শুনেছি। তুমি বিদেশে যাচ্ছে, কিন্তু একটু শীঘ্র করে ফিরে এসো। তুমি কাছাকাছি নেই মনে হলে কষ্ট হয় । ‘মনের পরশে’র শেষ অংশ অর্থাৎ তৃতীয় অংশটি ষে আমার কত ভালো লেগেছিল তা বলতে পারিনে। সত্যকার ব্যথা ও দুঃখের মধ্যে দিয়ে সমস্ত পৃথিবীময় মামুষে ষে মানুষের কত আপনার, এই কথাটি কত সহজেই না তোমার বইয়ের শেষটুকুতে ফুটে উঠেছে। তাই আমার কেবলই মনে হয়েছিল, তুমি বুঝি কার যথার্থ জীবনের দুঃখের কাহিনীটি লিপিবদ্ধ করে গেছ । কিন্তু এই লিপিবদ্ধ করার প্রণালীটি তোমাকে আর একটুখানি ষত্ব নিয়ে শিখতে হবে। তোমার বাবাকে আমি জানতাম না, তার অন্তরঙ্গদের মুখে শুনি, তার মানুষের বেদনা বোঝবার অনুভূতি খুব বড় রকমের ছিল। এইটি হয়ত তুমি উত্তরাধিকার স্বত্রে পেয়েছ। তোমাকে এই বস্তুটিকে মনের মধ্যে দিবারাত্রি লালন করে পূর্ণ মানুষ করে তুলতে হবে। তবেই ত হবে। বেশ, আমার চিঠির মধ্যে থেকে ষা ইচ্ছে তুমি প্রকাশ করতে পারে। অমুমতি श्लिांभ । তুমি আমার অতিশয় মেহের জিনিস। আজ বলে নয়, অনেক দিন থেকে। বন্ধুবান্ধবদের নিয়ে জামার বাড়িতে এসে হৈ হৈ করে লুচি খেয়ে যেতে, তখন থেকে। তোমাকে জামার সমস্ত হয়ে দিয়ে আশীৰ্ব্বাদ করি, এ জীবনে তুমি সকল হও, নীরোগ হও, দীর্ঘজীবী হও ।•••আশীৰ্ব্বাদক—শ্ৰীশরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায় ( o ) সামতাবেড়, জাবাঢ় ১৩৩৫ পরম কল্যাণীয়েৰু—মন্টু, কতদিন থেকে তোমার চিঠির জবাব দিতে পারিনি। না জানি কত রাগই তুমি কোরেছ। সেদিন তোমাদের থিয়েটার রোডের বাড়িতে গিয়েছিলাম। কিন্তু না ছিলে তুমি, না ছিলেন তোমার মাতুল তকু। সাহেবের বাড়ি, অপেক্ষা করা রীতি-বিরুদ্ধ কি না স্থির হোলো না। আমার সঙ্গে খিনি ছিলেন তিনি পাক লোক। দালালি কাজে সাহেবের বাড়িতে তার যাতায়াত আছে। তিনি বললেন card রেখে যাওয়াই etiquette,—ই করে বসে থাকলে এর রাগ করে। কিন্তু card না থাকায় আমরা নিঃশব্দে ফিরে এলাম । কালও অনেক রাত্ৰি পৰ্য্যন্ত তোমায় "দুধারা’র অনেক জায়গা আর একবার পড়ে গেলাম। বাস্তৰিকই বইখানি ভালো। অবহেলা কোরে যেমন-তেমনভাবে পড়ে षांबांब्र जित्रेिण बब्र, धम शि८ब्र नज़बांब्र भउद्दे बहे । किरू छांटम ड श्रांछकांल ота