পাতা:শরৎ সাহিত্য সংগ্রহ (দ্বিতীয় সম্ভার).djvu/৩৪২

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


শরৎ-সাহিত্য-সংগ্ৰহ ভজলোকেরা কেহই কিছু জানিতেন না, উাহারা আশ্চর্ষ্য হইয়া গেলেন। দিগগজ কহিল, সে বেচারার দিকে ভগবান যদি মুখ তুলে চাইলেন ত তাকেই বাড়িতে আস্থান —জাৰার একটা বিয়ে করবেন না। ম্যাট্রিকুলেশন পাশ । পাশ হয়ে ত সব হবে । রাগে তাহার দুই চক্ষু রাঙা হইয়া উঠিল । শৈলেশ্বর নিজেও কোনমতে ক্ৰোধ দমন করিয়া কহিল, আরে, সে যে পাগল দিগগজ। কেহ কাহাকেও পাগল বলিলে দিগ গজের আর হস থাকিত না, সে ক্ষেপিয়া উঠিয়া কহিল, পাগল সবাই ? আমাকেও লোকে পাগল বলে—তাই বলে আমি পাগল ! সকলেই উচ্চ-হাস্ত করিয়া উঠিলেন। কিন্তু তাই বলিয়া ব্যাপারটা চাপা পড়িল ন। হাসি থামিলে শৈলেশ লজ্জিতমুখে ঘটনাট বিবৃত করিয়া কহিল, আমার জীবনে সে একটা অত্যন্ত unfortunate ব্যাপার। বিলাতে যাবার আগেই আমার বিয়ে হয়, কিন্তু শ্বশুরের সঙ্গে বাবার কি একটা নিয়ে ভয়ানক বিবাদ হয়ে যায়। তা ছাড়া মাথা খারাপ বলে বাৰা তাকে বাড়িতে রাখতেও পারেননি। ইংল্যাণ্ড থেকে ফিরে এসে আমি আর দেখিনি। এই বলিয়া শৈলেশ জোর করিয়া একটু হাসির চেষ্টা করিয়া ঋছিল, ওহে দিগগজ। বুদ্ধিমান ! তা না হলে কি তারা একবার পাঠাৰার চেষ্টাও করতেন না ? চায়ের মজলিসে গরহাজির ত কখনো দেখলুম না ; কিন্তু তিনি সত্যি সত্যিই এলে আশা আর কোরো না । গঙ্গাজল জার গোবর ছড়ার সঙ্গে তোমাদের সকলকে বেটিয়ে সাফ করে তবে ছড়িবেন, এ নোটিশ তোমাদের আগে থেকেই দিয়ে রাখলুম। দিগগজ জোর করিয়া বলিল, কথখনে না। কিন্তু এ কথায় আর কেহ যোগ দিলেন না । ইহার পরে সাধারণ গোছের দুই-চারিটি কথাবার্ভার পরে রাত্রি হইতেছে বলিয়া সকলে গাত্ৰোখান করিলেন। প্রায় এমনি সময়েই প্রত্যহ সভা ভঙ্গ হয়, হইলও তাই। কিন্তু আজ কেমন একটা বিষয় মান ছায়া সকলের মুখের পরেই চাপিয়া রহিল—সে যেন আজ আর ঘূচিতে চাহিল না ।