পাতা:শ্যামলী - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৩৪

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


झोझigन्मा भन्म দাড়িয়ে আছি আড়ালে, ঘরে আসবে কিনা ভাবিছ সেই কথা । একবার একটু শুনেছি চুড়ির শব্দ । তোমার ফিকে পাটকিলে রঙের আঁচলের একটুখানি দেখা যায়, উড়ছে বাতাসে लद्भऊाद्ध दाठेgनु । তোমাকে দেখতে পাচ্ছি নে, দেখছি পশ্চিম আকাশের রোদন্দুর চুরি করেছে তোমার ছায়া, ফেলে রেখেছে আমার ঘরের মেকের ”পারে । দেখছি শাড়ির কালো পাড়ের নিচে থেকে তোমার কনক-গৌরবর্ণ পায়ের দ্বিধা ঘরের চৌকাঠের উপর। অজা ডাকব না তোমাকে । আজ ছড়িয়ে পড়েছে আমার হালকা চেতনাযেন কৃষ্ণপক্ষের গভীর আকাশে নীহারিকা, যেন বর্ষণশেষে মিলিয়ে আসা সাদা মেঘ শরতের নীলিমায় ।