পাতা:শ্যামলী - রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর.pdf/৬৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


( পাজারের উপরে আছাড়-খাওয়া মরণ সাগরের ডাক, ঘরের-শিকল-নাড়া উদাসী হাওয়ার ডাক যেন হাক দিয়ে আসে। অপূর্ণের সংকীর্ণ খাদে পূৰ্ণ স্রোতের ডাকাতিছিনিয়ে নেবে, ভাসিয়ে দেবে বুঝি । অঙ্গে অঙ্গে পাক দিয়ে ওঠে কালবৈশাখীর ঘূর্ণি-মার-খাওয়া অরণ্যের বকুনি । एछान्मा ८लश न्मि বিধাতা তোমার গান দিয়েছে আমার স্বপ্নে ঝোড়ো আকাশে উড়ো প্ৰাণের পাগলামি ঘরে কাজ করি শান্ত হয়ে ; সবাই বলে, ভালো । তারা দেখে আমার ইচ্ছার নেই জোর, नाएछा ८न्ठे ८ब्लाटुङझ ; ঝাপটি লাগে মাথার উপর, ধুলোয় লুটোই মাথা । দুরন্ত ঠেলায় নিষেধের পাহারা কাত ক’রে ফেলি। নেই এমন বুকের পাট ।