পাতা:শ্রীশ্রীরামকৃষ্ণ কথামৃত পঞ্চম ভাগ.djvu/১৪৫

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


% S) е শ্ৰীশ্রীরামকৃষ্ণ কথামৃত—৫ম ভাগ [ ১৮৮৩, ডিসেম্বর ২২ যমুনায় স্নান করতে যাই। তারা যাই ডুব দিয়েছেন—একেবারে গোলক দর্শন। আবার তারপর অখণ্ড জ্যোতিঃ দর্শন। যশোদা তখন বললেন, কৃষ্ণরে ও সব আর দেখতে চাই না—এখন তোর সেই মাছুষরূপ দেখবো । তোকে কোলে করবো, খাওয়াবো ।” “তাই অবতারে তিনি বেশী প্রকাশ | অবতারের শরীর থাকতে থাকতে উার পূজা সেবা করতে হয়।” ‘সে যে কোটার ভিতর চোর-কুটারী t ভোর হলে সে লুকাবে রে । “অবতারকে সকলে চিনতে পারে না । দেহ ধারণ করলে রোগ, শোক, ক্ষুধা, তৃষ্ণ সবই আছে, মনে হয় আমাদেরই মত। রাম সীতার শোকে কেঁদেছিলেন— ‘পঞ্চভূতের ফঁাদে, ব্ৰহ্ম পড়ে কাদে।” পুরাণে আছে, হিরণ্যাক্ষ বধের পর বরাহ অবতার নাকি ছানাপোন নিয়ে ছিলেন—তাহদের মাই দিচ্ছিলেন (সকলের হাস্ত )। স্বধামে যাবার নামটী নাই । শেষে শিব এসে ত্রিশূল দিয়ে শরীর নাশ করলে, তিনি হি হি করে ছেসে স্বধামে গেলেন।”