পাতা:শ্রীশ্রীহরি লীলামৃত.djvu/১৯৩

উইকিসংকলন থেকে
পরিভ্রমণে ঝাঁপ দিন অনুসন্ধানে ঝাঁপ দিন
এই পাতাটির মুদ্রণ সংশোধন করা প্রয়োজন।


ss শ্ৰীশ্ৰীহরিলীলামৃত । ধন্য ধন্য বাল্যকের মাতা সাধ্বী নারী । জনম বৃথায় যায় বল হরি হরি ॥ ধন্য ওঢ়াকাদি ধষ্ঠ অবতীর্ণ হরি। না চিনিয়া মোর কেন পাপে ডুবে মরি। হীরামনে দেখিতে লোকের ভীড় হল । অন্তৰ্য্যামী হীরামন অদৃগু হইল । কাদিয়৷ পাষণ্ডী সব ভূমে গড়াগড়ি। হীরামনে অন্বেষণে করি দৌড়াদৌড়ি ॥ সে হ’তে পাতলা গ্রাম নামে মেতে গেল । হরি হরি বলি সব মতুয়া হইল ॥ দশরথ গোস্বামী করেন যাতায়াত । ইষ্ট সম ভক্তি সবে করে অবিরত ॥ পাতলা গ্রাম নিবাসী মতুয়া হইল । হীরামন প্রীতে সবে হরি হরি বল ॥ প্রভু হীরামন কীৰ্ত্তি অলৌকিক কাজ। - রচিল তারকচন্দ্র কবি রসরাজ ॥ হীরামন গোস্বামীর বাহ লীলা। ... . দীর্ঘ-ত্রৗপদী। মৃত্যুঞ্জয়ের রমণী, * ওঢ়ার্কাদি যান তিনি, * *. লইয়া চলিল মৃত্যুঞ্জয় । সঙ্গেতে তারক চন্দ্র, অণর ঐগোলোক চন্দ্র, স্বৰ্য নারায়ণ সঙ্গে যায়। যোগানিয়া গ্রামে বাস, নামে গোলোক বিশ্বাস, • তিনি চলিলেন সেই সাথে । বেলা অপরাহ প্রায়, কাশীমার পিত্ৰালয়, উপস্থিত নিশ্চিন্ত পুরেতে ॥ " - কাশীমার ধৰ্ম্ম পুত্র, মল্লিক শ্ৰীচন্দ্রকান্ত, তিনি চলিলেন সে দিনেতে । . তারক শ্রীচন্দ্রকান্ত, দোহার মন একান্ত, হীরামন পাগলে দেখিতে ॥ ভজন মজুমদার, আসিয়া তাহার ঘর, হীরামন দিল দরশন। শীতকালে পৌষ মাস, গায় নাহি শীত বাস, মাত্র এক লেংটা ধারণ " চন্দ্রকান্ত দক্ষিণেতে, তারক বসি বামেতে, তার যধ্যে বসি হীরামন । দণ্ডেক মাত্র বসিয়া, ভূমেতে পড়ে লুঠিয়া, বলে তোরা কররে শয়ন ॥ কাশী মাতবে ভগিনী, একখানি কথা আনি, হীরামন গাত্রেপরে দিল । তিনি কন গোস্বামীরে, যাও প্রভু শয্যোপরে, তারকে কোলে করি শুইল ॥ তারকের হ’ল ভয়, হীরামন গায় গায়, লাগিবে অামার অঙ্গ তাপ । আমার পাপের দেহ, কামানলে সদা দাহ, • ভাবে কোথা হরিচাদ বাপ ॥ এত ভাবি যোড়ি কর, হস্ত রাখি শিরোপর, হরি পদ করিছে স্মরণ । গোস্বামী কহিছে বাণী, আমি সব পাপ জানি, উরু পরে দিলেন চরণ ॥ পাপী তাপী উদ্ধারিতে, হরি এলেন জগতে, . - যার আশ মোর হরিচাদে । যেই যাবে ওঢ়ার্কাদি, সেত নহে অপরাধী; , - তার পাপ মুছি বাম পদে ॥ s যে মোর হ’রেকে ডাকে, সে জন থাকুক সুখে, আমার মনের অভিলাষ । তার পাপ ঘুচাইব, শুভাশুভ আমি নিব, যেই যশোমন্ত স্থত দাস ॥ শয্যাহতে উঠিলেন, দক্ষিণ পদ দিলেন, তারকের বক্ষের উপর। তারকে করিয়া স্থির, গোসাই হ’ল বহির, বলে তোর নাহি কোন ডর ॥ গাত্র কন্থ। শিরে ল’য়ে, ঘরের বাহিরে গিয়ে, বসিলেন পূর্ব মুখ হ’য়ে। হরি পদ ধেয়াইয়া, ক্ষণে উঠে ঝোক দিয়া, -জলে যায় কাস্থা তেয়াগিয়ে ॥ প্রাতঃ কালে নামি জলে, পূৰ্ব্ব মুখ হয়ে চলে, ড়েকে বলে যারে মৃত্যুঞ্জয় । যাও হরি দরশনে, বিলম্ব করহ কেনে, মেরি হ'রে সুখে যেন রয় ॥ মৃত্যুঞ্জয় চলে গেল, ওঢ়াকাদি উতরিল, হগ্লিচাদ দরশন করি। প্ৰণমিয়া ত্ৰপদৈতে, মহাপ্রভু আজ্ঞা মতে, দেশে যাত্রা করিলেন ফিরি ॥ ঈশ্বর মজুমদার, আসিয়া তাহার ঘর, সে দিবস রহিল তথায় । - পরদিন প্রাতঃকালে, এসে মল্লকাদি বিলে, হীরামনে দেখিবারে পায় ॥